রবিবার, ২৯ মে 2022 বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   চট্রগ্রাম -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
স্বামীকে মিথ্যা মামলায় জাড়ানোর অভিযোগ করলেন চেয়ারম্যানের স্ত্রী

চকরিয়া প্রতিনিধি:

চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদর। সম্প্রতি ডুলহাজারা ইউনিয়নে সংগঠিত একটি হত্যাকান্ডের ঘটনায় তার বিরুদ্ধে ‘ষড়যন্ত্রমূলক ও মিথ্যা মামলা’ করা হয় বলে দাবি করেন তার স্ত্রী। ওই মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন করেছেন ডুলহাজারার জনসাধারণ। এতে ইউপি সদস্য সহ বিভিন্ন সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষ মানববন্ধনে অংশ নেন।

গত শুক্রবার (২৭ মে) বিকেলে (চট্টগ্রাম-কক্সবাজার) মহাসড়কের চকরিয়া পৌরশহরের থানা রাস্তার মাথায় মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদরের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলার আসামি করা হয়েছে। মূলত গেল ইউপি নির্বাচনের ইস্যুকে ঘিরে একটি চক্র তাকে এ হত্যা মামলায় জড়িয়েছে। এটি সম্পূর্ণ একটি মিথ্যা ও হয়রানিমূলক মামলা। বর্তমান সরকারের ইউনিয়নের উন্নয়ন কর্মকান্ডকে বাঁধাগ্রস্ত ও তাকে হয়রানি করতে নিহতের পরিবারের সদস্যদের একটি চক্র ম্যানেজ করে পরিকল্পিতভাবে চেয়ারম্যান আদর ও ইউপি সদস্য আবদু সালামকে এই হত্যা মামলায় জড়ানো হয়।

বক্তারা আরো বলেন, মামলার এজাহারে হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হওয়ার যে সময় উল্লেখ করা হয়েছে সে সময় তিনি ছিলেন চকরিয়া পৌরশহরে। যার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ এবং ছবিসহ বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত সংরক্ষিত রয়েছে। তাছাড়া দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ ও গুলাগুলির খবর পাওয়া মাত্রই থানার পুলিশকে সাথে নিয়ে ঘটনাস্থলে যান চেয়ারম্যান আদর। আমরা প্রশাসনসহ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। অবিলম্বে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত করে প্রকৃত দোষীদের বিচারের আওতায় আনার জোর দাবি জানাচ্ছি।

একইদিন মানববন্ধন পরবর্তী একটি সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদরের সহধর্মিনী নাহিদা সুলতানা সুমি। তিনি সংবাদ সম্মেলনে অশ্রুসিক্ত নয়নে বলেন, আমার স্বামী হাসানুল ইসলাম আদর ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে পরাজিতরা একজোট হয়ে আমার স্বামীর বিরুদ্ধে একের পর এক ষড়যন্ত্র অব্যাহত রেখেছে। এই হত্যাকান্ডের ঘটনায় তার কোনো ধরণের সম্পৃক্ততা নেই। সন্ত্রাসীদের গুলাগুলিতে নিহত আমির হোসেনের পরিবারকে ভুল বুঝিয়ে আমার স্বামীর বিরুদ্ধে পরাজিতরা মামলা করিয়েছে। তাই অবিলম্বে ষড়যন্ত্রমূলক এ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত করার জন্য প্রশাসনের প্রতি জোর দাবি জানাচ্ছি।

এ সময় সংবাদ সম্মেলনে ডুলাহাজারা ইউনিয়নের সকল ইউপি সদসবৃন্দ ও বিভিন্ন গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

স্বামীকে মিথ্যা মামলায় জাড়ানোর অভিযোগ করলেন চেয়ারম্যানের স্ত্রী
                                  

চকরিয়া প্রতিনিধি:

চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদর। সম্প্রতি ডুলহাজারা ইউনিয়নে সংগঠিত একটি হত্যাকান্ডের ঘটনায় তার বিরুদ্ধে ‘ষড়যন্ত্রমূলক ও মিথ্যা মামলা’ করা হয় বলে দাবি করেন তার স্ত্রী। ওই মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন করেছেন ডুলহাজারার জনসাধারণ। এতে ইউপি সদস্য সহ বিভিন্ন সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষ মানববন্ধনে অংশ নেন।

গত শুক্রবার (২৭ মে) বিকেলে (চট্টগ্রাম-কক্সবাজার) মহাসড়কের চকরিয়া পৌরশহরের থানা রাস্তার মাথায় মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদরের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলার আসামি করা হয়েছে। মূলত গেল ইউপি নির্বাচনের ইস্যুকে ঘিরে একটি চক্র তাকে এ হত্যা মামলায় জড়িয়েছে। এটি সম্পূর্ণ একটি মিথ্যা ও হয়রানিমূলক মামলা। বর্তমান সরকারের ইউনিয়নের উন্নয়ন কর্মকান্ডকে বাঁধাগ্রস্ত ও তাকে হয়রানি করতে নিহতের পরিবারের সদস্যদের একটি চক্র ম্যানেজ করে পরিকল্পিতভাবে চেয়ারম্যান আদর ও ইউপি সদস্য আবদু সালামকে এই হত্যা মামলায় জড়ানো হয়।

বক্তারা আরো বলেন, মামলার এজাহারে হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হওয়ার যে সময় উল্লেখ করা হয়েছে সে সময় তিনি ছিলেন চকরিয়া পৌরশহরে। যার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ এবং ছবিসহ বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত সংরক্ষিত রয়েছে। তাছাড়া দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ ও গুলাগুলির খবর পাওয়া মাত্রই থানার পুলিশকে সাথে নিয়ে ঘটনাস্থলে যান চেয়ারম্যান আদর। আমরা প্রশাসনসহ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। অবিলম্বে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত করে প্রকৃত দোষীদের বিচারের আওতায় আনার জোর দাবি জানাচ্ছি।

একইদিন মানববন্ধন পরবর্তী একটি সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদরের সহধর্মিনী নাহিদা সুলতানা সুমি। তিনি সংবাদ সম্মেলনে অশ্রুসিক্ত নয়নে বলেন, আমার স্বামী হাসানুল ইসলাম আদর ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে পরাজিতরা একজোট হয়ে আমার স্বামীর বিরুদ্ধে একের পর এক ষড়যন্ত্র অব্যাহত রেখেছে। এই হত্যাকান্ডের ঘটনায় তার কোনো ধরণের সম্পৃক্ততা নেই। সন্ত্রাসীদের গুলাগুলিতে নিহত আমির হোসেনের পরিবারকে ভুল বুঝিয়ে আমার স্বামীর বিরুদ্ধে পরাজিতরা মামলা করিয়েছে। তাই অবিলম্বে ষড়যন্ত্রমূলক এ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত করার জন্য প্রশাসনের প্রতি জোর দাবি জানাচ্ছি।

এ সময় সংবাদ সম্মেলনে ডুলাহাজারা ইউনিয়নের সকল ইউপি সদসবৃন্দ ও বিভিন্ন গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

চকরিয়ায় পুকুরে ডুবে শিশুর মৃত্যু
                                  

ইউসুফ বিন হোসাইন, চকরিয়া, কক্সবাজার:

কক্সবাজারের চকরিয়ায় পুকুরের পানিতে ডুবে সাঈদা নুরী তোহা নামের আড়াই বছর বয়সী এক কন্যা শিশুর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার বেলা একটার দিকে উপজেলার ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের মৌলভীর পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত সাঈদা ওই এলাকার সাইফুল ইসলামের কন্যা।

নিহত শিশুর মামা নিজাম উদ্দিন বলেন, শনিবার ১টার দিকে বাড়ির সামনে পুকুর পাড়ে খেলছিলো সাঈদা।

এসময় সবার অগোচরে পুুকুরে পড়ে যায় সে। খোঁজাখঁজির পর তোহাকে পুকুরের পানিতে ভাসতে দেখে পরিবারের সদস্যরা। পরে উদ্ধার করে স্থানীয় চিকিৎসকের কাছে নিয়ে গেলে সাঈদাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হেলাল উদ্দিন পুকুরে ডুবে শিশুর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

বেড়াতে গিয়ে লাশ হয়ে ফিরল দিপংকর
                                  

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:

চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার মালিয়ারা থেকে আনোয়ারা উপজেলার চাতরী গ্রামে মাশির বাড়িতে বেড়াতে এসে লাশ হয়ে ফিরছে ১০ বছরের শিশু দিপংকর। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে পিএবি সড়কের কালাবিবির দিঘির মোড়ে এক মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারায় সে।

পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করেছ। আটক করেছে চালকসহ স্কয়ার ফার্মসিউটিক্যাল কোম্পানির ঘাতক পিকআপটিও।

নিহত দীপংকরের বাড়ি পটিয়া উপজেলার মালিয়ারা গ্রামে। সে ওই এলাকার মৃত সজলের একমাত্র পুত্র। কিছুদিন পূর্বে তার বাবা সজল মারা গেছেন বলে জানা যায়।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, নিহত দিপংকর চাতরী গ্রামে তার খালার বাড়িতে বেড়াতে এসেছিল। সকালে তার খালাতো ভাই দুর্জয় এবং তার মামা সুজিতের সাথে আনোয়ারা সদরে আসে।  সেখান থেকে আবার মাশির বাড়ীর উদ্দেশ্যে সিএনজি অটোরিকশায় দিয়ে রওনা দেয়। কালাবিবির দীঘির মোড়ে নেমে তার মামা সুজিত গাড়ি ভাড়া দেওয়ার সময় দীপংকর দুর্জয়ের হাত থেকে ছুটে রাস্তা পার হওয়ার সময় ওষুধ কোম্পানির গাড়িটি তাকে চাপা দেয়। ফলে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারায় সে।

আনোয়ারা থানার ওসি এসএম দিদারুল ইসলাম সিকদার বলেন, সকাল ১১টায় গাড়ি চাপায় একজন শিশু নিহত হয়েছে। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করেছে। শিশুটিকে চাপা দেয়া পিকআপ ও চালককে আটক করা হয়েছে।

আনোয়ারায় নির্মাণের অপেক্ষায় ২৮ স্বপ্নের বাড়ি ‘বীর নিবাস’
                                  

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:

মুজিববর্ষ এবং স্বাধীনতার ৫০বছর পূর্তি উপলক্ষে সরকারের উপহার হিসেবে সারাদেশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা অসচ্ছল ও গৃহহীন বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং তাঁদের পরিবারের জন্য স্বপ্নের বাড়ি ‘বীর নিবাস’ পাচ্ছেন চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার ২৮ অসচ্ছল বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং তাঁদের পরিবার।

এসব ঘর নির্মাণের জন্য ইতিমধ্যেই শেষ হয়েছে টেন্ডার প্রক্রিয়া, কার্যাদেশ পেলেই শুরু হবে নির্মাণ কাজ। ৭৩৫ বর্গফুটের প্রতিটি ঘর নির্মানের জন্য প্রাক্কলিত ব্যায় ধরা হয়েছে ১৪ লক্ষ ১০ হাজার টাকা। এ পর্যায়ে আনোয়ারা উপজেলায় যে সকল বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং তাঁদের পরিবার স্বপ্নের বীর নিবাস পাচ্ছেন তাঁরা হলেন, ১নং বৈরাগ ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল জব্বার, বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ ফজলুল হকের পুত্র মুজিবুর রহমান।

২নং বারশত ইউনিয়নের বীর মুক্তি যোদ্ধা এম,এ,গফুর, বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুস সাত্তারের পুত্র সেকান্দ হোসেন। ৪নং বটতলী ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা দেলোয়ার হোসেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুর রহমানের পুত্র হারুনুর রশীদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা আছহাব উদ্দিনের কন্যা হোছনে আরা বেগম, বীর মুক্তিযোদ্ধা মনোরন্জন সেনের স্ত্রী আরতী সেন।
 
৫নং বরুমচাড়া ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহ্ আলম, বীর মুক্তিযোদ্ধা এম,এ, রাজ্জাক, বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল গফুরের স্ত্রী জাহানারা বেগম, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী। ৬নং বারখাইন ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলামের স্ত্রী আসমা বেগম, বীর মুক্তিযোদ্ধা নজরুল ইসলামের স্ত্রী ইয়াসমিন সোলতানা, বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল কাদেরের পুত্র, বীর মুক্তিযোদ্ধা রাখাল ঘোষের পুত্র বিকাশ কান্তি ঘোষ, বীর মুক্তিযোদ্ধা তাহের উদ্দিন চৌধুরী। ৭নং আনোয়ারা সদর ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা বাদল মিত্রের পুত্র রাজু মিত্র, বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজল আহমদের স্ত্রী আনোয়ারা বেগম।
৮নং চাতরী ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা জালাল আহমদের স্ত্রী তাহেরা বেগম, বীর মুক্তিযোদ্ধা নেপাল ধরের স্ত্রী মকুল ধর, বীর মুক্তিযোদ্ধা জামাল হোসেনের স্ত্রী রাজিয়া বেগম।

৯নং পরৈকোড়া ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা অমিত কুমার দাশের পুত্র, বীর মুক্তিযোদ্ধা স্বরজিত রদ্র`র স্ত্রী শেলী রুদ্র, বীর মুক্তিযোদ্ধা সম্ভু পালের পুত্র শেখর পাল্। ১০নং হাইলধর ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ হোসেন বাবু এবং ১১নং জুঁইদন্ডি ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুস সালামের স্ত্রী সাহেদা বেগম।

এ প্রসঙ্গে আনোয়ারা উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জমিরুল ইসলাম দৈনিক স্বাধীন বাংলাকে জানান মুক্তিযোদ্ধাদের ভিটির উপর নির্মিত এসব ঘর হবে একতলা বিশিষ্ট, যাতে থাকবে ২টি বেডরুম, ২টি টয়লেট, ১টি ড্রয়িং ও ১টি কিচেন রুম।

প্রতিটি ঘরের জন্য ব্যায় ধরা হয়েছে ১৪ লক্ষ ১০ হাজার টাকা। এসব ঘর নির্মাণের জন্য বিধি মোতাবেক টেন্ডারের মাধ্যমে ইতিমধ্যেই ঠিকাদার নিয়োগ করা হয়েছে, ফাইল অনুমোদনের জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়েছে, আশা করছি এ মাসের(মে মাস) মধ্যেই কার্যাদেশ দেওয়া হবে, এবং এ বছরের নভেম্বর মাসেই বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং তাঁদের পরিবাবারের কাছে আনুষ্ঠানিক ভাবে হস্তান্তর করা যাবে।

এ বিষয়ে নিজেদের অনুভূতি প্রকাশ করে আনোয়ারা উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার আবদুল মান্নান ও ডেপুটি কমান্ডার সিরাজুল ইসলাম খান স্বাধীন বাংলাকে বলেন, জাতির জনকের সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে স্বাধীনতার স্বপক্ষের শক্তি আজ ক্ষমতায় আছে বলেই সারা দেশে এতদিন যাবৎ ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা অবহেলিত মুক্তিযোদ্ধাদের মূল্যায়িত করা হচ্ছে। আজ আমরা ভিষণ আনন্দিত, সকল মুক্তিযোদ্ধা এবং তাঁদের পরিবারের পক্ষথেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতাও জানান তাঁরা।

প্রসঙ্গত- এর আগে গত বছরও(২০২১ সাল) এ প্রকল্পের আওতায় আনোয়ারা উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নর ১০ মুক্তিযোদ্ধা এবং তাঁদের পরিবার পেয়েছিলেন ১০টি বীর নিবাস, যার আয়তন ছিল ৬৩৫ বর্গফুট। এবং ওইসব ঘরের জন্য বরাদ্দ ছিল ১৩ লক্ষ ৪৩ হাজার টাকা।

চকরিয়ায় বনভূমি দখলকে কেন্দ্র করে নিহত ১
                                  

চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি:

কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারায় বনভূমি দখলকে কেন্দ্র করে পাল্টাপাল্টি হামলায় আমির হোসেন (৪০) নামে একজন নিহত হয়েছে। সোমবার (২২ মে) রাত দশটার সময় ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের ডুমখালী এলাকায় ঘটেছে এ ঘটনা।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, বনবিভাগের জমি দখল বেদখল নিয়ে সোমবার রাত দশটার দিকে ডুমখালী গ্রামের সন্ত্রাসী রহমান গ্রুপের হামলায় পূর্ব ডুমখালী গ্রামের মৃত কবির আহমেদের ছেলে আমির হোসেন ঘটনাস্থলেই নিহত হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাসানুল ইসলাম আদর আমির হোসেন।

চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জুয়েল ইসলাম বলেন, প্রতিপক্ষের হামলায় আমির হোসেন নামক এক ব্যাক্তি নিহতের খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃতদেহ উদ্ধার করে চকরিয়া থানায় নিয়ে আসি। রাত সাড়ে ১১ টায় ঘটনাস্থলে চকরিয়া সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার তফিকুল আলমের নেতৃত্বে বিপুল পুলিশ মোতায়েন ছিল।

চকরিয়ায় বনভূমি দখলকে কেন্দ্র করে নিহত ১

যুবলীগ নেতা মুবিনের আশায় মোড়ানো ‘সিভি’ কেন্দ্রে যাবে কি?
                                  

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:
দির্ঘ ১২বছর পর হতে যাওয়া বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলার সম্মেলনে সভাপতির পদ প্রত্যাশী অসুস্থ যুবলীগ নেতা ফৌজুল মুবিনের সিভিটি আদৌ কেন্দ্রে পৌছানো যাবে কি? এই শংকায় দিন কাটছে আনোয়ারা উপজেলার বাসিন্দা, চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা যুবলীগের বর্তমান কমিটির সহ-সভাপতি ফৌজুল মুবিন চৌধুরীর।

দৈনিক স্বাধীন বাংলাকে মুঠোফোনে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে ফৌজুল মুবিন চৌধুরী বলেন, বিগত ২০২০ সালের ১৩ মে আনোয়ারায় নিজি বাড়ীর অদুরে এক সড়ক দুর্ঘটনায় মারাত্মকভাবে আহত হয়ে অদ্যবদি অসুস্থ শরীর নিয়ে আমি এক প্রকার গৃহবন্দী।

এমতাবস্থায় গত ২৬মার্চ ২০২২ তারিখ প্রকাশিত কেন্দ্রিয় যুবলীগের এক বিজ্ঞপ্তিতে চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা যুবলীগের আসন্ন সম্মেলনে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদ প্রত্যাশীদের সিভি(জীবন বৃত্তান্ত) জমা দিতে বলা হয়। যাতে উল্লেখ করা হয় ২ এপ্রিল ২০২২ থেকে ৫ এপ্রিল ২০২২ পর্যন্ত চার দিনের মধ্যে সংগঠনের দক্ষিণ জেলা কমিটির শীর্ষ ওই দুটি পদ প্রত্যাশীদের সশরীরে উপস্থিত হয়ে সিভি জমা দিতে হবে।

আমি এ বারের সম্মেলনে দক্ষিণজেলা যুবলীগের সভাপতির পদ প্রত্যাশী, তাই বিষয়টি জানার পর থেকেই কেন্দ্রীয় যুবলীগের চেয়ারম্যান ও সাধারণ সম্পাদকের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করেও ব্যার্থ হই।

এরই মধ্যে সিভি জমাদানের জন্য কেন্দ্র কর্তৃক বেঁধে দেওয়া সময় অতিবাহিত হয়ে গেলেও অসুস্থ শরীর নিয়ে ঢাকায় সশরীরে হাজির হয়ে আমার সিভি জমা দেওয়া হয়নি। কিন্তু আমি হাল ছাড়িনি, বুক ভরা আশা নিয়ে সিভি জমাদানের অন্যকোন উপায় জানতে কেন্দ্রীয় নেতাদের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা অব্যাহত রাখি।

অবশেষে গত ১২মে যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস্ পরশ এবং ১৭মে সাধারণ সম্পাদক মাঈনুল ইসলাম খান নিখিলের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করার সুযোগ হলে দুদজনকেই আমার শারিরীক দুরাবস্থার কথা তুলে ধরে সশরীরে উপস্থিত হয়ে সিভি জমাদানে অপারগ হওয়ায় মানবিক দৃষ্টিতে ডাক যোগে বা অন্যকোন মাধ্যমে আমাকে সিভি জমাদানের সুযোগ দেওয়ার আকুতি জানাই।

তাঁরা আমার কথা শোনেন এবং আমার শারীরিক অবস্থা বিবেচনায় ডাক যোগে সিভি পাঠানোর সুযোগ চেয়ে একটি লিখিত আবেদন কেন্দ্রে পাঠাতে বলেন।

সে মোতাবেক আমি গত ১৮ মে যুবলীগ চেয়ারম্যান ও সাধারণ সম্পাদক বরাবরে একটি লিখিত মানবিক আবেন রেজিস্ট্রি ডাক যোগে প্রেরণ করি। আবেদনটি পাঠানোর প্রায় দুদসপ্তাহ পরও কোন সিগন্যাল না পাওয়াতে যুবলীগের দপ্তর সম্পাদক মুস্তাফিজুর রহমান মাসুদের সাথে ফোনে যোগাযোগ করলে তিনি এই ধরণের কোন আবেদন পাননি বলে জানান এবং আমাকে পূণরায় কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে আবেদনটি পাঠাতে বললে আমি গত ৭মে সুন্দরন কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে আবেদনটি পাঠাই।

১০ মে পুণরায় দপ্তর সম্পাদকের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি তা পেয়েছেন বলে স্বীকার করেন। এবং চেয়ারম্যান ও সাধারণ সম্পাদকের কাছে উপস্থাপন করবেন বলেও জানান। সেই থেকে বুক ভরা আশা নিয়ে বসে আছি কবে পাঠাবো আমার দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনের ফিরিস্তি সম্বলিত সেই সিভিটি।

মুবিন অনেকটা আবেগমাখা কন্ঠে স্বাধীন বাংলাকে বলেন, ১৯৮৬ সালের স্কুল ছাত্রলীগের সভাপতি হিসেবে রাজনৈতিক যাত্রা শুরু করে পরবর্তিতে কলেজ ছাত্রলীগ, ইউনিয়ন ছাত্রলীগ ও উপজেলা এবং জেলা ছাত্রলীগের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব নিয়ে নব্বইয়ের দশকের দলের চরম দুঃসময়ে স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনসহ বিভিন্ন সংগ্রামে অগ্রণী ভূমিকা রেখেছি। বর্তমানে আমি চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা যুলীগের ২য় সহ-সভাপতির দায়িত্বে আছি।

জাতির জনকের আদর্শকে বুকে ধারণ করে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রতি অবিচল আস্থা রেখে জীবনের স্বর্ণালী সময়গুলো দলের পেছনে ব্যায় করেছি। দলের যে কোন দুঃসময়ে দলের সাথে থেকে সুসময়ে কোন কিছু আশা করিনি। দলের পদ পদবী ব্যবহার করে কোন অনৈতিক কাজে জড়াইনি।

তিনি আরও বলেন প্রাণের দলটি আজ ক্ষমতায়, দলের এখন সুসময়। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত আজ দুই বৎসর যাবত আমি অসুস্থ। আমার বিশ্বাস আমার রাজনৈতি জীবন বৃত্তান্ত (সিভি)টি কেন্দ্রীয় শীর্ষ নেতৃবৃন্দের হাতে পৌঁছাতে পারলে তা দেখে তাঁরা আমাকে মুল্যায়ন করবেন।

সম্মেলনের আর মাত্র কদটা দিন বাকি। তাই আমি যে কোন উপায়ে সভাপতি পদ প্রত্যাশী হিসেবে আমার সিভিটি কেন্দ্রে পাঠানোর সুযোগ ও অনুমতি চাই।

প্রসঙ্গত- আগামী ২৮মে চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেল অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। দির্ঘ ১২বছর পর অনুষ্ঠিত এ সম্মেলনকে কেন্দ্র করে জেলা জুড়ে চলছে নানা আলোচনা ও জল্পনা কল্পনা।

‘হেলাল’ বিতর্কে টালমাটাল আনোয়ারা উপজেলা বিএনপি
                                  

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:

চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলা বিএনপি’র সদ্যঘোষিত আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিব লায়ন এম, হেলাল উদ্দিনকে নিয়ে ওই কমিটির অধিকাংশ সদস্য এবং আনোয়ারা-কর্ণফুলী বিএনপি ও এর অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন মাধ্যমে প্রচারিত মন্তব্য, আলোচনা-সমালোচনায় টালমাটাল অবস্থায় পড়েছে আনোয়ারা উপজেলা বিএনপি।

হেলালের সদস্য সচিব পদটি নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন ঘোষিত কমিটির আহবায়ক প্রবীন বিএনপি নেতা মোশারফ হোসেনও। মুঠোফোনে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি দৈনিক স্বাধীন বাংলাকে বলেন, দলের এই চরম ক্রান্তিলগ্নে এলোমেলো উপজেলা বিএনপিকে ঐক্যবদ্ধ করে শক্তিশালী ভূমিকায় অবতীর্ণ করতে দল আমাকে যে গুরু দায়িত্ব দিয়েছে তা পালন করা কঠিন হয়ে পড়েছে।
 
তিনি বলেন, শুধু আমি নই সদস্য সচিব পদটি নিয়ে ঘোষিত এ কমিটিতে নাম থাকা অনেকেই অসন্তোষ প্রকাশ করছেন। ক্ষোভ প্রকাশ করছেন কমিটির অন্যান্য পদবী বিন্যাস নিয়েও। ফলে এই কমিটি নিয়ে শক্তিশালী দল গঠনে কতটুকু কাজ করতে পারবো তা নিয়ে বেশ দুঃশ্চিন্তায় আছি।

একাধিক সূত্রে জানা যায়, গত ১৭ এপ্রিল বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান, মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এবং যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বরাবর বিতর্কিত এই হেলালের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ তুলে ধরে আনোয়ারা উপজেলা থেকে চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা বিএনপিতে স্থান পাওয়া আটজন নেতার যৌথ স্বাক্ষরে একটি চিঠি দেওয়া হয়েছিল। ওই চিঠিতে স্বাক্ষর করেন ঘোষিত উপজেলা কমিটির আহবায়ক মোশারফ হোসেন নিজেই। বাকি সাতজনের সবাই এখন এই বিতর্কিত কমিটির যুগ্ম আহবায়ক। তাঁরা হলেন, এম, মন্জুর উদ্দিন চৌধুরী, ভিপি মোজাম্মেল, এ্যাড. ফৌজুল আমিন চৌধুরী, মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী জাহেদ, হুমায়ুন কবির আনসার, আবু মোহাম্মদ নিপার ও মোস্তাফিজুর রহমান।

সূত্রে প্রকাশ, ওই চিঠিতে সাবেক দক্ষিণজেলা বিএনপি নেতা জামাল উদ্দিন অপহরন ও হত্যা মামলায় হেলালের জড়িত থাকার বিষয়টি এবং পরবর্তি সময়ে আওয়ামী রাজনীতির সাথে জড়িত হওয়াসহ অসংখ্য অভিযোগ তুলে ধরেছেন।


দলের শীর্ষ নেতাদের বরাবরে নিজের কমিটির বর্তমান সদস্য সচিবের বিরুদ্ধে লেখা চিঠিতে স্বাক্ষর প্রসঙ্গে মোশারফ হোসেন বলেন, আমরা মিথ্যে কিছু লিখিনি। হেলালকে উপজেলা কমিটির শীর্ষ পদে আনা হচ্ছে তা বুঝতে পেরে আমরা নেতাদের কাছে তাঁর বিতর্কিত কর্মকান্ডের কথা তুলে ধরেছি।

তিনি আরও বলেন, আপনারাসহ আনোয়ারা তথা সারা দেশের মানুষ জানে আলোচিত বিএনপি নেতা জামাল উদ্দিন হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া একাধিক মামলার শীর্ষ আসামী পুলিশের কাছে দেওয়া জবানবন্দিতে ওই ঘটনায় হেলালের জড়িত থাকার কথা বলেছে। তাছাড়া বিগত ২০১৪ সালের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দলের মনোনীত প্রার্থীর বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে  প্রকাশ্যে আওয়ামীলীগের প্রার্থীর পক্ষে কাজ করেছেন তিনি। এর পর থেকে দলের এই দুঃসময়েও দলবিরোধী কর্মকান্ডে জড়িত থাকেন তিনি, যা শুধু আমরা আটজনই নয় দলের তৃণমূলের সকল নেতাকর্মীই অবগত।

দায়িত্ব পাওয়ার পর প্রকাশ্যে তাঁর বিরুদ্ধে চলমান এসব বিতর্কের বিষয়ে জানতে হেলাল উদ্দিনের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি দৈনিক স্বাধীন বাংলাকে জানান বিএনপি একটি বৃহত্তম রাজনৈতিক দল। এখানে পছন্দ অপছন্দ, মান অভিমান থাকবেই। একটা কুচক্রী মহল ঈর্ষান্বিত হয়ে আমার বিরুদ্ধে কুৎসা রটনা করছে। আমি আমার কমিটির সকল নেতাদের সাথে আলাপ আলোচনা করছি, সবার সহযোগিতায় আনোয়ারা উপজেলা বিএনপিকে একটি ঐক্যবদ্ধ ও শক্তিশালী সংগঠন রূপে গড়ে তুলতে নিরলস ভাবে কাজ করবো।

জামাল উদ্দিন হত্যা মামলা প্রসঙ্গে তিনি বলেন ওই মামলার দু’একজন আসামী ষড়যন্ত্রমূলকভাবে তখন আমাকে জড়িয়ে জবানবন্দি দিলেও পরবর্তীতে পুলিশসহ দেশের একাধিক গোয়েন্দা সংস্থা বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করেছেন, তদন্তে তাদের দেয়া জবানবন্দি মিথ্যে প্রমাণিত হয়েছে।

এমন এক বিতর্কিত ব্যাক্তিকে শীর্ষ পদে রেখে উপজেলা কমিটি গঠন করার বিষয়ে জানতে চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা বিএনপির আহবায়ক আবু সুফিয়ানের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি এ বিষয়ে কথা বলতে অনীহা প্রকাশ করে ফোন কেটে দেন।

প্রসঙ্গত- গত ১৪মে দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহবায়ক আবু সুফিয়ান ও সদস্য সচিব মোশতাক আহমদ স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে মোশারফ হোসেনকে আহবায়ক এবং লায়ন হেলালউদ্দিনকে সদস্য সচিব করে আনোয়ারা উপজেলা বিএনপি’র ৬১ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়।

চট্টগ্রাম ইউপি নির্বাচনে চরপাথরঘাটায় ইভিএম
                                  

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:

আসন্ন ৮ম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার পরৈকোড়া ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দাখিল কৃত ৬ জনের এবং কর্ণফুলী  উপজেলার চরপাথরঘাটা ইউনিয়নে চেয়াম্যান পদে ৩ জন ও মেম্বার পদে দাখিলকৃত ৫৭ জনের মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করেছেন এ দুটি ইউনিয়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং কর্মকর্তারা।

বৃহস্পতিবার) মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাই শেষে উল্লেখিত ইউনিয়ন দুটির নির্বাচনে দাখিলকৃত সকল প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ হয়েছে বলে জানান উপজেলা দু`টির নির্বাচন কর্মকর্তা। আগামী ১৫জুন অনুষ্টিতব্য এ নির্বাচনে কর্ণফুলীর চরপাথর ঘাটায় ইভিএম(ইলেক্ট্রনিক ভোটিং মেশিন) পদ্ধতিতে হলেও আনোয়ারার পরৈকোড়া ইউনিয়নে ব্যালট পেপারেই হবে ভোট গ্রহন।

আনোয়ারা উপজেলার পরৈকোড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যন পদে উপ-নির্বাচনে সর্বমোট ৬জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন, তাঁরা হলেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী আজিজুল হক চৌধুরী বাবুল, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ আলী চৌধুরী, নাজিম উদ্দিন সুজন, হাসান জিয়াউল হক, নাজিম আহমেদ এবং আবদুল মালেক মানিক।

অন্যদিকে কর্ণফুলী উপজেলার চরপাথরঘাটা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদের জন্য বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী সেলিম হক ছাড়াও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ছাবের আহমদ এবং মনির আহমদ মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।

তাছাড়া এ ইউনিয়নের ৯টি সাধারণ ওয়ার্ডের সদস্য পদের জন্য ৪৪জন ও সংরক্ষিত ৩টি মহিলা ওয়ার্ডের সদস্য পদের জন্য ১৩জনসহ সর্বমোট ৫৭জন সদস্য প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।

প্রসঙ্গত, বিগত চতুর্থ ধাপের ইউপি নির্বাচনে কর্ণফুলী উপজেলার অন্য ৪টি ইউপিতে নির্বাচন হলেও মামলা সংক্রান্ত জটিলতায় হয়নি চরপাথরঘাটা ইউপির নির্বাচন।
 
আর পঞ্চম ধাপের ইউপি নির্বাচনে আনোয়ারার পরৈকোড়া ইউপিতে নির্বাচন অনুষ্টিত হলেও ওই নির্বাচনে বিজয়ী চেয়ারম্যান মামুনুর রশীদ চৌধুরী আশরাফের মৃত্যুতে চেয়াম্যানের পদটি শুন্য হয়।

সাগরে ৬ কোটি ৬৪ লাখ টাকার গম বোঝাই জাহাজ ডুবি
                                  

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি
প্রায় ৬ কোটি ৬৪ লাখ টাকার গমসহ বঙ্গোপসাগরে ডুবে গেছে লাইটার জাহাজ ‘এমভি তামিম’। বুধবার বিকেলে জাহাজটি রামগতি পাইলট বিচের নিচে তিল্লার চর এলাকায় ডুবে যায়। দুর্ঘটনার পর জাহাজটির ১২ জন নাবিককে অপর একটি জাহাজ উদ্ধার করেছে।
মঙ্গলবার চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙরে অবস্থানরত বড় জাহাজ ‘এমভি প্রোফেল গ্রিজ’ থেকে প্রায় এক হাজার ৬০০ টন গম বোঝাই করে ঢাকার নাবিল অটো ফ্লাওয়ার মিলের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছিল জাহাজটি।
এমভি তামিম জাহাজটি ওয়াটার ট্রান্সপোর্ট সেলের (ডব্লিউটিসি) সিরিয়ালে পরিচালনা করছিল সমতা শিপিং অ্যান্ড লজিস্টিকস।
সমতার কর্মকর্তা জামাল হোসেন জানিয়েছেন, চলার পথে পানির নিচে অদৃশ্য বস্তুর সঙ্গে লেগে জাহাজের সামনের হেজ ফেটে যায়। এ সময় হেজে পানি ঢুকে যায়। পরে মাঝের ও সামনের হেজেও পানি ঢুকে জাহাজটি ডুবে যায়। নাবিকদের নিরাপদে উদ্ধার করা হয়েছে।

এবার সমঝোতা নয়, ৮ বছর পর বটতলী হাইস্কুল পরিচালনা কমিটির নির্বাচন
                                  

আনোয়ারা(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি :

বিগত চার মেয়াদে (৮বছর যাবৎ) বোঝাপড়ার মাধ্যমে অভিভাকসহ সকল ক্যাটাগরির সদস্য পদে সিলেকশনেই হয়েছে চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার বটতলী শাহ্ মোহ্ছেন আউলিয়া উচ্চবিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটি।

বর্তমান কমিটির মেয়াদ শেষ হওয়াতে আগামী ২৮ মে অনুষ্টিত হতে যাচ্ছে এ স্কুল পরিচালনা কমিটির নির্বাচন। এবারের কমিটিও কি নির্বাচন না করে সমঝোতা বা বোঝাপড়ার মাধ্যমে হবে?
তপশীল ঘোষণার পর থেকেই এ নিয়ে চলছিল নানা  আলোচনা সমালোচনা ও জল্পনা কল্পনা।

অবশেষে সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটলো। অভিভাক ও দাতা সদস্যদের সরাসরি ভোটেই এবার নির্বাচিত হবে অভিভাক ক্যাটাগরির ৫সদস্য এবং দাতা ক্যাটাগরির ১সদস্য। এর মধ্যে অভিভাবক ক্যাটগরির সংরক্ষিত এক জন মহিলা সদস্য পদে অন্য কোন প্রতিদ্বন্দ্বি না থাকায় ওই পদে ফাতিমা বেগম নামের একজনকে ইতিমধ্যেই নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়েছে।

তাছাড়া শিক্ষক প্রতিনিধি হিসেবে ৩টি পদের জন্য ৩ এর অধিক প্রার্থী না থাকায় এ ৩টি পদে অত্র স্কুলের শিক্ষক বিজেশ কান্তি চৌধুরী, মো. নাসির উদ্দিন ও রোকেয়া বেগমকে নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়েছে।

বাকি ৪ অভিভাবক প্রতিনিধি নির্বাচনের জন্য ১০জন মনোনয়নপত্র সংগ্রহ ও জমা করলেও গতকাল ১৭ মে মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন আহমদ সোবহান, আবদুল মন্নান ও নুরুল আলম নামের তিনজন তাঁদের মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিলে ওই ৪টি পদের জন্য লড়ছেন ৭ জন।

আর দাতা ক্যাটাগরি থেকে একজন প্রতিনিধি পদের জন্য লড়ছেন দু’জন। তাঁরা হলেন দাতা সদস্য শাহাবুদ্দিন আহমদ এবং মাস্টার আবুল হোসেন।

অভিভাবক প্রতিনিধির ৪টি পদের জন্য যে ৭জন নির্বাচনে লড়ছেন তাঁরা হলেন, নুরুল হক, ঝুমুর মহাজন, মো.জাহাঙ্গীর আলম, মোক্তারুজ্জামান, এসএম কামরুল ইসলাম, এসএম জসিম উদ্দিন, এবং নুরুল আবছার।

দির্ঘদিন পর হতে যাওয়া  ঐতিহ্যবাহী এই স্কুল কমিটির নির্বাচনকে ঘিরে অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের মাঝে বিরাজ করছে আনন্দ, সর্বত্রই চলছে নানা হিসেব নিকেশ।

আগামী ২৮ মে অনুষ্টিতব্য এ নির্বাচনে সর্বমোট ১৬৫৫ জন অভিভাবক এবং ১৯ জন দাতা সদস্য সরাসরি ভোটের মাধ্যমে তাঁদের প্রতিনিধি নির্বাচিত করবেন।

আসামির দায়ের কোপে কনস্টেবলের কবজি বিছিন্ন
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক
আসামির দায়ের কোপে হাতের কবজি বিচ্ছিন্ন হওয়া পুলিশ কনস্টেবল জনি খানকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়া হয়েছে। রোববার (১৫মে) বিকেল পাঁচটা ২০ মিনিটে লোহাগাড়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ভক্ত চন্দ দত্ত এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, কনস্টেবল জনি খানকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য দুপুর দুইটা ৫০ মিনিটে হেলিকপ্টারে করে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়। আমি তার সঙ্গেই আছি। ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসকরা তার হাতের অপারেশনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

তবে কনস্টেবল জনি খানকে কোন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে সে বিষয়ে কোনো তথ্য জানাননি এসআই ভক্ত চন্দ দত্ত। এর আগে সকালে চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলায় অভিযানে গিয়ে আসামির দায়ের কোপে হাতের কবজি বিচ্ছিন্ন হয় কনস্টেবল জনি খানের। একই ঘটনায় আরও এক কনস্টেবল আহত হন। ঘটনার পর পালিয়ে যান আসামি কবির আহম্মদ। রোববার (১৫ মে) সকাল দশটার দিকে উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের ৯ নম্বর লালারখিল এলাকায় মারামারি মামলার আসামি ধরতে গেলে এ ঘটনা ঘটে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন চট্টগ্রাম জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সাতকানিয়া সার্কেল) মো. শিবলী নোমান। তিনি বলেন, গত ২৪ মার্চ লালারখিল গ্রামে দুই পক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় একটি মামলা হয়েছিল। সেই মামলার এজাহারভুক্ত আসামি ছিলেন কবির আহম্মদ। সকালে কবিরকে গ্রেপ্তার করতে তার বাড়িতে অভিযানে যায় লোহাগাড়া থানা পুলিশের একটি দল। বাড়িতে প্রবেশ করে কবিরকে ধরতে গেলেই কবির কনস্টেবল জনি খানের বাম হাতে ধারালো দা দিয়ে কোপ মারে। এতে জনির বাম হাতের কবজি বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

মো. শিবলী নোমান বলেন, এ ঘটনায় এখনো কাউকে গ্রেপ্তার করা যায়নি। জড়িতদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

বঙ্গবন্ধু টানেলে বদলে যাচ্ছে আনোয়ারা, আধুনিক শহরের হাতছানি
                                  

আনোয়ারা (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি :

চট্টগ্রামের কর্ণফুলী নদীর তলদেশ ভেদ করে তৈরী হচ্ছে দেশের প্রথম টানেল বা সুড়ঙ্গ পথ। যা দিয়ে যাতায়ত করবে সব ধরণের যানবাহন। শুনলে রূপকথার গল্প মনে হলেও তার সত্যিকারের রূপ দেখতে অপেক্ষা করতে হবে আর মাত্র ক’টা মাস।

স্বপ্নের এই টানেলটির নির্মানকাজ প্রায় শেষের দিকে, সবকিছু ঠিক থাকলে এ বছরের শেষ অথবা আগামী বছরের প্রথম দিকে এর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হবে বলে জানিয়েছেন প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা।

দেশের প্রথম এই টানেলটির নামকরণ করা হয়েছে ‘বঙ্গবন্ধু টানেল’ নামে। এই টানেলের নির্মাণে খরচ হচ্ছে প্রায় ১০ হাজার ৪৪ কোটি টাকা।

চট্টগ্রামের পতেঙ্গা নেভাল একাডেমির পাশ দিয়ে শুরু হয়ে নদীর তলদেশ ভেদ করে এটি উঠেছে দক্ষিণ পাড়ের আনোয়ারা প্রান্তে। নদীর ভেতরে মূল পথের দৈর্ঘ্য হচ্ছে ৩.৩২কিলোমিটার।

টানেলটি চালু হলেই বদলে যাবে পাহাড় আর সাগরের মোহনায় গড়ে উঠা আনোয়ারা উপজেলার দৃশ্যপট। এখানে গড়ে উঠবে আরেক নতুন চট্টগ্রাম। সম্প্রসারিত হবে আবাসনসহ বিভিন্নন ধরণের ব্যবসা বাণিজ্য। ফলে আনোয়ারা পরিণত হবে চিনের সাংহাইয়ের আদলে ওয়ান সিটি টু টাউনে।

সড়ক ও জনপথ বিভাগের সমীক্ষা অনুযায়ি বছরে প্রায় ৭০ লক্ষাধিক ছোট বড় যানবাহন চলাচল করবে কর্ণফুলী টানেলের ভেতর দিয়ে। এই বিশাল অংকের গাড়ির চাপ সামাল দিতে ৩৯০ কোটি টাকান ব্যায়ে পিএবি (পটিয়া-আনোয়ারা-বাঁশখালী) সড়কের শিকলবাহ ওয়াই জংশন থেকে আনোয়ারার কালাবিবির দিঘি চত্বর পর্যন্ত ৮.১০ কিলোমিটার ১৮ ফুট প্রস্তের  সরু এই  সড়কটিকেও উন্নীত করা হচ্ছে ছয় লেনে। যার প্রস্ত হবে ১৬০ ফুট। ১৬০ ফুটের ছয় লেনের মধ্যে ১২০ ফুটে হবে চারটি লেন, যা দিয়ে চলবে বড় বড় যানবাহন আর বাকি ৪০ ফুটে হবে দু’টি লেন যা দিয়ে চলবে স্থানীয় ছোট যানগুলো।

টানেলের দক্ষিণ প্রান্তের সংযোগ সড়কটি পিএবি সড়কের চাতরী চৌমুহনী এলাকায় মিলিত হবে। এ সড়ক ধরেই টানেল হয়ে আসা সব গাড়ি  যাবে চট্টগ্রাম শহর ও কক্সবাজার জেলায়। এ ছাড়াও মহেশখালীর মাতার বাড়ী গভীর সমুদ্রবন্দর, মহেশখালীতে স্থাপিত এলএনজি স্টেশন এবং বাঁশখালীতে নির্মাণাধীন দেশের প্রথম কয়লাভিত্তিক পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের মত মেগা প্রকল্পগুলোতে যাতায়তের মাধ্যম হবে আনোয়ারার উপর দিয়েই।
ফলে আনোয়ারায় গড়ে ওঠা কোরিয়ান ও চায়না অর্থনৈতিক অঞ্চলের সাথে এসব মেগা প্রকল্পে যাতায়ত ব্যবস্থায় বৈপ্লবিক ভূমিকা রাখবে বঙ্গবন্ধু টানেল।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালের ১৪ অক্টোবর টানেলটির ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর পর থেকেই পুরোদমে চলে আসছে এর নির্মান কাজ।

রাঙামাটিতে ফরমালিনযুক্ত কাঁঠাল জব্দ, জরিমানা
                                  

রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি:

রাঙ্গামাটির নানিয়ারের ইসলামপুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে মাত্রারিক্ত ফরমালিন মেশানো প্রায় পাঁচ শতাধিক কাঁঠাল জব্দ করা হয়েছে। এ সময় জব্দকৃত এসব ফরমালিনযুক্ত কাঁঠাল ধ্বংস করে উপজেলা প্রশাসন। একই সাথে কাঁঠাল ব্যবসায়ী মাঃ শহীদকে নগদ ৩০ হাজার টাকা অর্থদ- প্রদান করে।

শুক্রবার নানিয়াচর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ ফজলুর রহমান এই অভিযান পরিচালনা করেন। অভিযানে সহায়তা করেন নানিয়ারচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুজন হালদার।

 এ ধরনের ফরমালিন যুক্ত খাবার খেয়ে মানুষ স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে পড়ছে। তাই ফরমালিন আমদানি, বিক্রি, ব্যবহার নিয়ন্ত্রণ সম্পর্কে যেসব আইন ও বিধিমালা করা হয়েছে তার সঠিক বাস্তবায়ন দরকার। তাহলে এই অপরাধ দমন অনেকটা সহজ হবে৷

খাবারে ফরমালিন মেশানো শাস্তিযোগ্য অপরাধ। খাদ্যে ও ফলে ফরমালিন মেশালে দায়ী ব্যক্তিদের শাস্তির মাত্রা এমন করতে হবে যেন তারা ভবিষ্যতে মানুষের জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলার সাহস না পায় বলেও জানান ভ্রাম্যমাণ আদালত।

চকরিয়ায় যাত্রীবাহী বাস উল্টে নিহত ১
                                  

ইউসুফ বিন হোসাইন, চকরিয়া,কক্সবাজার:
চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে চকরিয়া কলেজ গেইট এলাকায় যাত্রীবাহী বাস উল্টে খাদে পড়ে শারমিন আক্তার রিমা (২৩) নামে এক নারী নিহত হয়েছেন। এসময় গুরুতর আহত হয়েছেন ৫ যাত্রী।

আজ বুধবার ভোর পৌনে ৫টার দিকে চকরিয়ার লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের কলেজ গেট এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত শারমিন রাজধানী ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ সুবুড্ডা ইউনিয়নের মীরেরবাগ এলাকার মো. রিয়াদের স্ত্রী।

চিরিঙ্গা হাইওয়ে থানার ইন্সপেক্টর মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা কক্সবাজারগামী যাত্রীবাহী একটি বাস চকরিয়া কলেজ গেট এলাকায় পৌঁছালে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের পার্শ্ববর্তী খাদে পড়ে উল্টে যায়। এসময় একজন নারী নিহত হয়। বাসের সব যাত্রী কমবেশী আহত হয়। আহতদের মধ্যে ৫ জনের অবস্থা গুরুতর।

তাদের উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠনো হয়। দুর্ঘটনাকবলিত বাসটি জব্দ ও নিহত নারীর মরদেহ তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।  

রাঙামাটিতে নির্মাণাধীন ব্রিজ ধসে শ্রমিক নিহত
                                  

রাঙামাটি প্রতিনিধি:
রাঙামাটি আসামবস্তি কাপ্তাইয়ে সড়কের বড়াদম এলাকায় নির্মাণাধীন সেতু ধসে এক শ্রমিক নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরো ১৬ জন। বৃহস্পতিবার (২৮ এপ্রিল) সকাল দশটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায় ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা। সেখানে ঢালাই নেতৃত্বে থাকা শ্রমিক রফিকের মৃত্যু হয়।

শ্রমিকরা জানান, প্রায় ২০/২২ জন শ্রমিক সকাল থেকে সেতুর ঢালাইয়ের কাজ করছিল। ঢালাইয়ের কাজ চলাকালে এক পর্যায়ে মিক্সচার মেশিন সহ সেতুর স্লেপ ধসে পড়ে যায়। এতে হতাহতের ঘটনা ঘটে।

রাঙ্গামাটি জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক কর্মকর্তা শওকত আকবর খান বলেন, মোট ১৬ জন শ্রমিক হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসে। এ মধ্যে রফিক নামে এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। বাকি আরেকজনের অবস্থা বেশ আশঙ্কাজনক। বাকিরা একটু তার চেয়ে ভালো। এদিকে খবর পেয়ে রাঙ্গামাটি পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

বেলা ১১টা বাজতেই শেষ ট্রেনের টিকিট
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক :
সারা দেশের মতো চট্টগ্রামেও ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রির আজ চতুর্থ দিন। আজ দেওয়া হচ্ছে ৩০ এপ্রিলের টিকিট। মঙ্গলবার (২৬ এপ্রিল) সকাল ৮টায় শুরু হয় টিকিট বিক্রি। কিন্তু দেখা গেছে, বেলা ১১টা বাজেই ঢাকাগামী সুবর্ণ ও সোনার বাংলা ছাড়া অন্য সব ট্রেনের টিকিট শেষ হয়ে গেছে। ফলে অনেক যাত্রী পাঁচ থেকে ছয় ঘণ্টা লাইনে দাঁড়িয়েও টিকিট পাননি।

চট্টগ্রাম রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার রতন কুমার চৌধুরী বলেন, অন্য দিনের তুলনায় আজ টিকিট প্রত্যাশী যাত্রীদের ভিড় বেশি ছিল।

তিনি জানান, সকাল ১০টার মধ্যে শেষ হয়ে গেছে ময়মনসিংহগামী বিজয় এক্সপ্রেস ও ঢাকাগামী তূর্ণা এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকিট। এছাড়া সকাল ১১টার ভিতর শেষ হয়ে গেছে ঢাকাগামী মহানগর এক্সপ্রেস, গোধূলি, চট্টলা, সিলেটগামী পাহাড়িকা ও উদয়ন, চাঁদপুরগামী স্পেশাল দুটিসহ সবগুলো ট্রেনের টিকিট। তবে ঢাকাগামী সোনার বাংলা ও সূবর্ণ ট্রেনের কিছু টিকিট বেলা সোয়া ১১টা পর্যন্ত ছিল।

তিনি আরও বলেন, আগামীকাল ট্রেনের টিকিট প্রত্যাশীদের চাপ কম থাকতে পারে।

তিনি বলেন, চট্টগ্রাম থেকে প্রতিদিন ১০টি আন্তঃনগর ট্রেন ছেড়ে যায়। এসব ট্রেনে সবমিলে মোট ৭ হাজার সিট রয়েছে। এগুলোর মধ্যে কাউন্টার থেকে বিক্রি করা হবে ৩ হাজার ৫০০ টিকিট। বাকি টিকিট অনলাইনে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া চাঁদপুরগামী দুটি স্পেশাল ট্রেনের ১ হাজার ২৮টি আসনের টিকিট বিক্রি করা হয়েছে আজ। যাত্রার দিন ঢাকামুখী ট্রেনগুলোতে অতিরিক্ত বগি যোগ করার চেষ্টা করা হবে।

স্টেশন ম্যানেজার বলেন, টিকিটের কার্যক্রম সিসিটিভির মাধ্যমে মনিটরিং করা হচ্ছে। এছাড়া স্টেশনে পুলিশ, আরএনবিসহ নিরাপত্তা বাহিনী সদস্যরা কাজ করছেন।

সিলেটের টিকিট কিনতে আসা শীলা আক্তার বলেন, ভোর ৪টায় লাইনে দাঁড়িয়ে সকাল ১০টার দিকে টিকিট পেয়েছি। খুবই ভালো লাগছে। লাইনে দাঁড়ানোর কষ্ট চলে গেছে।

লিপি আক্তার যাবেন আখাউড়া। ৩০ তারিখের তূর্ণা এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকিটের জন্য। না পেয়ে পরে সাড়ে ১২টার মহানগর এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকিট কেটেছেন। তিনি বলেন, ৬ ঘণ্টা লাইনে দাঁড়িয়ে থাকার পরও প্রত্যাশিত ট্রেনের টিকিট পাইনি। পরে বাধ্য হয়ে অন্য ট্রেনের টিকিট কাটতে হয়েছে।

বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের চাকরি করেন শিমুল সিদ্দিক। স্টেশনে এসেছিলেন ময়মনসিংহগামী বিজয় ট্রেনের টিকিট কাটতে। তিনি বলেন, পাঁচ ঘণ্টা লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলাম। সকাল ১০টার আগেই মাইকে ঘোষণা দেওয়া হয় টিকিট শেষ।

চট্টগ্রাম রেলওয়ে স্টেশন সূত্রে জানা গেছে, স্টেশনের ১ নম্বর কাউন্টারে নারী, ওয়ারেন্ট ও রেলওয়ের পাস টিকিটের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। ২ নম্বর কাউন্টারে সুবর্ণ ও সোনার বাংলা এক্সপ্রেস (স্নিগ্ধা ও শোভন চেয়ার), ৩ নম্বর কাউন্টারে পাহাড়িকা ও উদয়ন, ৪ নম্বর কাউন্টারে মহানগর গোধূলি ও মহানগর এক্সপ্রেস, ৫ নম্বর কাউন্টারে তূর্ণা এক্সপ্রেস, ৬ নম্বর কাউন্টারে চট্টলা ও বিজয় এক্সপ্রেস (স্নিগ্ধা, শোভন চেয়ার ও শোভন), ৭ নম্বর কাউন্টারে মেঘনা এক্সপ্রেস, চাঁদপুর স্পেশাল ট্রেনের টিকিট বিক্রি হচ্ছে। বাকি কাউন্টারে অন্যান্য ট্রেনের টিকিট দেওয়া হচ্ছে।


   Page 1 of 51
     চট্রগ্রাম
স্বামীকে মিথ্যা মামলায় জাড়ানোর অভিযোগ করলেন চেয়ারম্যানের স্ত্রী
.............................................................................................
চকরিয়ায় পুকুরে ডুবে শিশুর মৃত্যু
.............................................................................................
বেড়াতে গিয়ে লাশ হয়ে ফিরল দিপংকর
.............................................................................................
আনোয়ারায় নির্মাণের অপেক্ষায় ২৮ স্বপ্নের বাড়ি ‘বীর নিবাস’
.............................................................................................
চকরিয়ায় বনভূমি দখলকে কেন্দ্র করে নিহত ১
.............................................................................................
যুবলীগ নেতা মুবিনের আশায় মোড়ানো ‘সিভি’ কেন্দ্রে যাবে কি?
.............................................................................................
‘হেলাল’ বিতর্কে টালমাটাল আনোয়ারা উপজেলা বিএনপি
.............................................................................................
চট্টগ্রাম ইউপি নির্বাচনে চরপাথরঘাটায় ইভিএম
.............................................................................................
সাগরে ৬ কোটি ৬৪ লাখ টাকার গম বোঝাই জাহাজ ডুবি
.............................................................................................
এবার সমঝোতা নয়, ৮ বছর পর বটতলী হাইস্কুল পরিচালনা কমিটির নির্বাচন
.............................................................................................
আসামির দায়ের কোপে কনস্টেবলের কবজি বিছিন্ন
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধু টানেলে বদলে যাচ্ছে আনোয়ারা, আধুনিক শহরের হাতছানি
.............................................................................................
রাঙামাটিতে ফরমালিনযুক্ত কাঁঠাল জব্দ, জরিমানা
.............................................................................................
চকরিয়ায় যাত্রীবাহী বাস উল্টে নিহত ১
.............................................................................................
রাঙামাটিতে নির্মাণাধীন ব্রিজ ধসে শ্রমিক নিহত
.............................................................................................
বেলা ১১টা বাজতেই শেষ ট্রেনের টিকিট
.............................................................................................
রাঙ্গামাটিতে সড়ক দুর্ঘটনায় ২ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত
.............................................................................................
নতুন ঘরে ঈদ করবে উখিয়ার ২২০ পরিবার
.............................................................................................
ঈদ উপলক্ষে দেশে ঢুকছে ‘নতুন ব্রান্ডের’ ইয়াবা
.............................................................................................
কাপ্তাই হ্রদে পহেলা মে থেকে মাছ শিকার বন্ধ
.............................................................................................
চকরিয়ায় ইউপি মেম্বারকে মাদক মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ
.............................................................................................
রাঙ্গামাটির বাজারে তরমুজের দাম চড়া
.............................................................................................
দ্রব্যমূল্যের বাজার মনিটরিংয়ে চিটাগাং চেম্বার
.............................................................................................
বিয়েবাড়ি থেকে ঘরে ফেরার পথে দুর্ঘটনায় যুবকের মৃত্যু
.............................................................................................
মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত সাংবাদিক ইউসুফ
.............................................................................................
মেসার্স ইমাম শরীফ ফিলিং স্টেশনের রিটেলার ডিলারশীপ লাইসেন্স বাতিল
.............................................................................................
কক্সবাজারে দুই গাড়ীর মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৪
.............................................................................................
চকরিয়ায় হামলা ও লুটপাটের অভিযোগ রাজিবের বিরুদ্ধে
.............................................................................................
চকরিয়ায় ভবনের ছাদ থেকে পড়ে কিশোরীর মৃত্যু
.............................................................................................
বান্দরবানের পাহাড়ে গুলি; ৪ জন নিহত
.............................................................................................
চকরিয়ায় ২ গাড়ির মুখোমুখি সংঘর্ষে চালক নিহত
.............................................................................................
চট্টগ্রামে তরুণ-তরুণীর লাশ উদ্ধার
.............................................................................................
চকরিয়ায় মসজিদে ঢুকে হুজুর ও শিক্ষার্থীদের উপর হামলা
.............................................................................................
মডেল মসজিদ নির্মাণে স্থবিরতা, মুসল্লীদের মানববন্ধন
.............................................................................................
২৪ ঘন্টায় চট্টগ্রামে করোনা শনাক্ত ২৭৭
.............................................................................................
সেনা কর্মকর্তা হত্যাকান্ডে জড়িতদের গ্রেফতারের দাবিতে বিক্ষোভ
.............................................................................................
সড়ক দুর্ঘটনায় একই পরিবারের ৪ ভাইয়ের করুণ পরিণতি
.............................................................................................
এমপির ভয়ে জীবন বাঁচাতে পরিবার নিয়ে দেড় মাস ধরে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন যুবলীগ নেতা
.............................................................................................
চকরিয়ায় সালিশে যুবককে কুপিয়ে হত্যা
.............................................................................................
রাঙ্গামাটি তিন পুলিশ কর্মকর্তার আইজিপি ব্যাজ অর্জন
.............................................................................................
আবারও রোহিঙ্গা শিবিরে আগুন, পুড়ে ছাই ২৯ ঘর
.............................................................................................
চকরিয়ায় অগ্নিকান্ডে বসতঘর পুড়ে ছাই
.............................................................................................
চট্টগ্রামে চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ, গাড়ি ভাংচুর
.............................................................................................
ভোট শুরুর আগে প্রার্থীর মৃত্যু
.............................................................................................
বান্দরবানে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত ১
.............................................................................................
চকরিয়ায় ব্যবসায়ীকে জবাই করে হত্যা
.............................................................................................
কক্সবাজারে ধর্ষণকান্ড: আরো এক আসামি গ্রেফতার
.............................................................................................
খাগড়াছড়িতে যুবলীগ নেতাকে অপহরণ
.............................................................................................
কক্সবাজারে অস্ত্রসহ যুবক আটক
.............................................................................................
চকরিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারালেন শিক্ষক
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া
যুগ্ম সম্পাদক: প্রদ্যুৎ কুমার তালুকদার

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Dynamic Solution IT