বৃহস্পতিবার, ২৬ মে 2022 বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   খেলাধূলা -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
রিয়ালকে ফাইনালে নাস্তনাবুদ করল বার্সা

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
বার্সেলোনার নারী দলের সামনে চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনালে হারের পর তা সামলে নেওয়ার জন্য খুব বেশি সময় ছিল না । কোপা দে লা রেইনার সেমিফাইনালে, যেখানে আবার প্রতিপক্ষ ছিল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ। তবে ঘরোয়া টুর্নামেন্টে ফিরতেই দাপুটে সেই রূপে ফিরেছেন অ্যালেক্সিয়া পুতেয়াসরা। ৪-০ গোলে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদের নারী দলকে।

এস্তাদিও মিউনিসিপাল দে সান্তো দমিঙ্গোয় ম্যাচটির আগে দলটি পায় দুঃসংবাদ, চোটের কারণে ছিটকে যান জেনি এরমোসো ও মেরিতেক্স মুনইয়োজ। তবে তাদের ছাড়াও যে দল গড়ে নেমেছে বার্সা, তা ১০ দিনের বিশ্রাম পাওয়া রিয়াল মাদ্রিদকে হারিয়ে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট ছিল।

ম্যাচটায় শুরু থেকেই বার্সেলোনা ভালো অবস্থানে ছিল। দুবার শট প্রতিহত হয়েছে ক্রসবারে, এর পর রিয়াল গোলরক্ষক মিসাও দারুণ কিছু সেভ দিয়ে বার্সেলোনাকে অপেক্ষায় রেখেছিলেন। তবে ১৯ মিনিটে অবশেষে প্রথম গোলের দেখা পায় রিয়াল মাদ্রিদ। পুতেয়াসের ক্রস থেকে মাদ্রিদের জালে বল জড়ান লেইকে মার্তেনস।

প্রথমার্ধে আরও কিছু সুযোগ পেয়েছিল বার্সা। তবে কাজে লাগাতে পারেনি একটিও। ফলে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় দলটি। বিরতি থেকে ফিরেই অবশ্য গোলের দেখা পেয়ে যায় বার্সা, আসিস্তাত অশোয়ালার দারুণ একটা চেষ্টা ঠেকিয়ে দেন রিয়াল গোলরক্ষক, আইতানা বোনমাতির ফিরতি চেষ্টায় দ্বিতীয় গোল পায় বার্সা। এর মিনিট চারেক পরই তৃতীয় গোল নিয়ে ম্যাচটা রিয়ালের ধরাছোঁয়ার বাইরে নিয়ে যায় বার্সা। মার্তেনসের ক্রসে মাথা ছুঁইয়ে গোল করে বসেন মারিওনা কালদেনতে।

এর পরও থামেনি বার্সার আক্রমণ। ৭৫ মিনিটে অশোয়ালার দারুণ এক গোলে ৪-০ গোলে এগিয়ে যায় বার্সা। ম্যাচটি শেষ করে সেই ব্যবধানে এগিয়ে থেকেই। তাতেই দলটি পৌঁছে যায় কোপা দে লা রেইনার ফাইনালে। আগামী রোববারের ফাইনালে অ্যালেক্সিয়াদের প্রতিপক্ষ স্পোর্তিং হুয়েলভা।

রিয়ালকে ফাইনালে নাস্তনাবুদ করল বার্সা
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
বার্সেলোনার নারী দলের সামনে চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনালে হারের পর তা সামলে নেওয়ার জন্য খুব বেশি সময় ছিল না । কোপা দে লা রেইনার সেমিফাইনালে, যেখানে আবার প্রতিপক্ষ ছিল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ। তবে ঘরোয়া টুর্নামেন্টে ফিরতেই দাপুটে সেই রূপে ফিরেছেন অ্যালেক্সিয়া পুতেয়াসরা। ৪-০ গোলে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদের নারী দলকে।

এস্তাদিও মিউনিসিপাল দে সান্তো দমিঙ্গোয় ম্যাচটির আগে দলটি পায় দুঃসংবাদ, চোটের কারণে ছিটকে যান জেনি এরমোসো ও মেরিতেক্স মুনইয়োজ। তবে তাদের ছাড়াও যে দল গড়ে নেমেছে বার্সা, তা ১০ দিনের বিশ্রাম পাওয়া রিয়াল মাদ্রিদকে হারিয়ে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট ছিল।

ম্যাচটায় শুরু থেকেই বার্সেলোনা ভালো অবস্থানে ছিল। দুবার শট প্রতিহত হয়েছে ক্রসবারে, এর পর রিয়াল গোলরক্ষক মিসাও দারুণ কিছু সেভ দিয়ে বার্সেলোনাকে অপেক্ষায় রেখেছিলেন। তবে ১৯ মিনিটে অবশেষে প্রথম গোলের দেখা পায় রিয়াল মাদ্রিদ। পুতেয়াসের ক্রস থেকে মাদ্রিদের জালে বল জড়ান লেইকে মার্তেনস।

প্রথমার্ধে আরও কিছু সুযোগ পেয়েছিল বার্সা। তবে কাজে লাগাতে পারেনি একটিও। ফলে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় দলটি। বিরতি থেকে ফিরেই অবশ্য গোলের দেখা পেয়ে যায় বার্সা, আসিস্তাত অশোয়ালার দারুণ একটা চেষ্টা ঠেকিয়ে দেন রিয়াল গোলরক্ষক, আইতানা বোনমাতির ফিরতি চেষ্টায় দ্বিতীয় গোল পায় বার্সা। এর মিনিট চারেক পরই তৃতীয় গোল নিয়ে ম্যাচটা রিয়ালের ধরাছোঁয়ার বাইরে নিয়ে যায় বার্সা। মার্তেনসের ক্রসে মাথা ছুঁইয়ে গোল করে বসেন মারিওনা কালদেনতে।

এর পরও থামেনি বার্সার আক্রমণ। ৭৫ মিনিটে অশোয়ালার দারুণ এক গোলে ৪-০ গোলে এগিয়ে যায় বার্সা। ম্যাচটি শেষ করে সেই ব্যবধানে এগিয়ে থেকেই। তাতেই দলটি পৌঁছে যায় কোপা দে লা রেইনার ফাইনালে। আগামী রোববারের ফাইনালে অ্যালেক্সিয়াদের প্রতিপক্ষ স্পোর্তিং হুয়েলভা।

সালাহকে রিয়াল কোচের হুঁশিয়ারি
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
২০১৮ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালে হারের প্রতিশোধ নেওয়ার কথা বলেছিলেন মোহামেদ সালাহ। তবে লিভারপুল ফরোয়ার্ডকে কার্লো অ্যানচেলোত্তি মনে করিয়ে দিলেন, প্রতিশোধের মিশনটা আসলে রিয়াল মাদ্রিদের। ১৯৮১ ইউরোপিয়ান ফাইনালে যে লিভারপুলের কাছে এবারের ফাইনালের স্বাগতিক শহর প্যারিসেই হেরেছিল স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়নরা। চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালের আগে ভালোই জমে উঠেছে কথার লড়াই।

তখনও ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদের চাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালে জায়গা নিশ্চিত হয়নি। ম্যানচেস্টার সিটির বিপক্ষে দ্বিতীয় লেগ খেলা বাকি। তার আগের দিন ভিয়ারিয়ালকে হারিয়ে নিজেদের ফাইনাল নিশ্চিত করে সালাহ বলেছিলেন, ফাইনালে তিনি রিয়াল মাদ্রিদকে চান। পরের দিন নাটকীয় জয়ে ম্যান সিটিকে টপকে মাদ্রিদ ফাইনালে জায়গা নিশ্চিত করার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সালাহ যেন তাদের সরাসরি হুমকিই দিয়ে বসলেন, ‘আমাদের কিছু হিসাব-নিকাশ বাকি আছে।’

২০১৮ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে হারের দিকেই ইঙ্গিত করছিলেন এই মিসরীয় ফরোয়ার্ড। যে ম্যাচে তখনকার রিয়াল অধিনায়ক সার্জিও রামোসের বাজে ট্যাকলের শিকার হয়ে আধঘণ্টা খেলেই মাঠ ছাড়তে হয়েছিল সালাহকে, হার আর চোটের বিষাদে নীল সালাহ পরের বছরই চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতলেও রিয়ালের বিপক্ষে প্রতিশোধের আগুন নেভেনি। এবার তাই একেবারে ঘোষণা দিয়ে প্রতিশোধের হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন।

মাদ্রিদ ক্যাম্প থেকে সালাহর হুঁশিয়ারির তাৎক্ষণিক জবাব কেউ দেয়নি। তবে অবশেষে দলটির কোচ অ্যানচেলোত্তি ওই প্রসঙ্গে মুখ খুললেন, ‘২০১৮’র ফাইনাল সালাহ’র জন্য অনুপ্রেরণা হতে পারে, তবে প্যারিসে কিন্তু মাদ্রিদও লিভারপুলের বিপক্ষে একটি ফাইনাল হেরেছিল। তাই আমাদেরও সেই হারের প্রতিশোধ নেওয়ার সুযোগ আছে।’

ফেসবুকে আবার লিখলেন মুশফিকের স্ত্রী
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
কৃতিত্বের অনন্য উপস্থাপনা ব্যাক টু ব্যাক সেঞ্চুরি বাংলাদেশের ব্যাটিং ভরসা মুশফিকুর রহিমের, বাংলাদেশের জাতীয় ক্রিকেট দলের এই সিনিয়র খেলোয়াড়। কিছু দিন ফর্মে না থাকলেও আবারও ছন্দে ফিরেছেন বগুড়ার এই মেধাবী ক্রিকেটার।

তার ফর্মহীন পারফর্ম্যান্স নিয়ে সমালোচনা শুরু হতেই চট্টগ্রাম টেস্টে ক্যারিয়ারের অষ্টম সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে উপযুক্ত জবাব দেন মুশফিকুর রহিম। সেঞ্চুরির আগে বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে টেস্টে ৫ হাজার রান করার গৌরবও অর্জন করেন তিনি।

রান খরায় ভুগতে থাকা মুশফিকের এমন অর্জনে ঝাঁঝালো স্ট্যাটাস দিয়েছিলেন তার স্ত্রী জান্নাতুল কেফায়েত মন্ডি। তার সে স্ট্যাটাসে সমালোচনার তুমুল ঝড় উঠে দেশের ক্রিকেটাঙ্গনে।

এরপর সোমবার দ্বিতীয় টেস্ট শুরু হল ঢাকায়। এই টেস্টের প্রথম ইনিংসে চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে বাংলাদেশ দল। দলের বেহাল দশায় হাল ধরেন লিটন দাস ও মুশফিকুর রহিম। দলকে টেনে তোলেন নিরাপদ জায়গায়। সেই সঙ্গে দুইজনই তুলে নেন সেঞ্চুরি। লিটনের তৃতীয় সেঞ্চুরি হলেও মুশফিকের এটি নবম টেস্ট সেঞ্চুরি। সেই সঙ্গে টেস্ট ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো ব্যাক টু ব্যাক সেঞ্চুরি হাঁকানোর কৃতিত্ব অর্জন করেন মুশফিক।

মুশফিকের এই সেঞ্চুরির পরও স্ট্যাটাস দিয়েছেন তার স্ত্রী। জান্নাতুল কেফায়েত মন্ডি সোমবার তার ইনস্টাগ্রাম আইডিতে মুশফিকের একটি ছবি শেয়ার দিয়ে লেখেন, “আলহামদুলিল্লাহ্ ব্যাক টু ব্যাক সেঞ্চুরি।”

উল্লেখ্য, এর আগে চট্টগ্রাম টেস্টে সেঞ্চুরির পর মন্ডি লিখেছেন, “আমরা হাসিমুখেই বিদায় নেব ইনশাআল্লাহ। তবে আপনাদের রিপ্লেসমেন্ট আছে তো? সেদিকেও একটু নজর দিলে বাংলাদেশের ক্রিকেটের উন্নয়ন হতো।”

এশিয়া কাপ হকি, ভারত পাক ম্যাচের ফল সমান
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
এশিয়া কাপ হকিতে প্রথম ম্যাচেই চির প্রতিপক্ষ পাকিস্তানের কাছে আটকে গেল ভারত। ম্যাচের ১-১।

জাতীয় দলের জার্সি গায়ে অভিষেক ম্যাচেই নজর কাড়লেন কার্তি সেলভাম। প্রথম কোয়ার্টারেই গোল করে ভারতকে এগিয়ে দেন তিনি। পেনাল্টি কর্নারকে কাজে লাগিয়ে গোল করেন ২০ বছরের তরুণ।

এরপর পাক অধিনায়ক উমর ভাট্টি দলকে সমতায় ফেরানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু ভারতের রক্ষণ চিড়তে বিফল হন। যদিও ভারতকে চাপে রাখতে সফল হন তাঁরা। দ্বিতীয় ও তৃতীয় কোয়ার্টারে আবার হাড্ডাহাড্ডি লড়াই চলে দুই দলের মধ্যে। কেউ কাউকে এক ইঞ্চিও জমি ছেড়ে দেয়নি।

হাফ টাইমে সেলভামের গোলেই এগিয়ে ছিল ভারত। হাফ টাইমের পর তৃতীয় কোয়ার্টেরও গোলের দেখা পাওয়া যায়নি। তবে ভারতীয় অধিনায়ক বীরেন্দ্র লাকরা সবুজ কার্ড দেখায় ভারত ক্ষণিকের জন্য ১০ জনে নেমে যায়।

চতুর্থ কোয়ার্টারে পাকিস্তান হু হু করে আক্রমণ শুরু করে। চাপের মুখে বাধ্য হয়ে ভারতীয় দল রক্ষণাত্মক হকি খেলতে শুরু করে। ভারতের হয়ে উত্তম সিং সবুজ কার্ড দেখেন। মরিয়া রক্ষণের সুবাদে যখন দেখে মনে হচ্ছিল ভারত নিশ্চিত জয়ের দিকে এগোচ্ছে। ঠিক তখনই বিপত্তি। ম্যাচের মাত্র এক মিনিট বাকি থাকতে পাকিস্তান পেনাল্টি কর্নার পায় এবং তা থেকে গোল করে ম্যাচে সমতায় ফেরে।

ভারতীয় দল এই টুর্নামেন্টে অনেক নতুন মুখদের সুযোগ দিয়েছে। দলটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন অভিজ্ঞ বীরেন্দ্র লাকরা, আর সর্দার সিং কোচের ভূমিকায় রয়েছেন। এশিয়া কাপের শেষবার ২০১৭ সালে খেলা হয়েছিল, যখন ভারতীয় দল মালয়েশিয়াকে পরাজিত করে তৃতীয়বারের মতো ট্রফি দখল করেছিল।

রাজনীতির জল্পনা নিয়ে মুখ খুললেন কপিল দেব
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়ে রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার একাধিক উদাহরণ রয়েছে ভারতে। এবার কি সেই পথে হাঁটছেন কপিল দেব? সম্প্রতি এই নিয়েই শুরু হয়েছে জোর চর্চা। কৌতূহল মেটাতে এবার নিজেই আসরে নামলেন বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে একটি খবর। যেখানে বলা হয়, আগামী সপ্তাহেই রাজনীতির আঙিনায় পা রাখতে চলেছেন কপিল দেব । তারপর থেকেই শুরু হয়ে যায় আলোচনা। কোন দলে নাম লেখাবেন বিশ্বের সর্বকালের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার? রবিবার নিজের সোশ্যাল অ্যাকাউন্টে করে সেই জল্পনায় জল ঢাললেন তিনি। জানালেন, এমন খবর সম্পূর্ণ মিথ্যে। ভুয়ো খবর ছড়ানোয় নিজের হতাশাও প্রকাশ করেছেন কপিল। নিজের ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে তিনি লেখেন, “খবর পেলাম আমি নাকি কোনও রাজনৈতিক দলে যোগ দিতে চলেছি। এটা একেবারে মিথ্যে। আমি কোনও দলের সঙ্গে যুক্ত নই। মানুষ যেভাবে ভুয়ো খবর ছড়াচ্ছে, তাতে বেশ দুঃখই পেলাম। নিশ্চিন্ত থাকুন, ভবিষ্যতে এমন কোনও বড় সিদ্ধান্ত নিলে, নিজেই জানাব।”

২০০৯ সালে একবার তাঁর রাজনীতি যোগের জল্পনা তৈরি হয়েছিল। সে সময় কপিল দেব নিজেই জানিয়েছিলেন, প্রায় প্রত্যেকটি রাজনৈতিক দলের তরফে তাঁর কাছে প্রস্তাব এসেছিল। কিন্তু সবাইকেই তিনি ফিরিয়ে দিয়েছিলেন। কপিলের কথায়, “আমি চাই ভাল লোকেরা রাজনীতিতে যোগ দিন।” সেবারের পর এবার ফের মাথাচাড়া দেয় একই জল্পনা। কিন্তু এবারও তা নস্যাৎ করে দিলেন কিংবদন্তি তারকা।

এর আগে নভজ্যোৎ সিং সিধু, গৌতম গম্ভীরের মতো একাধিক ক্রিকেটার ২২গজ থেকে বিদায় নিয়ে রাজনীতিতে পা রেখেছেন। রাজ্যসভার সাংসদ হন শচীন তেণ্ডুলকরও। তবে কপিল দেব নিজের গায়ে রাজনীতির রং চড়তে দেননি। প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক ক্রিকেটীয় কর্মযজ্ঞের সঙ্গে জড়িয়ে থাকতেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন।

রিয়ালের প্রস্তাব ফিরিয়ে পিএসজিতই এমবাপে
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
এমবাপে সকল আলোচনার অবসান ঘটিয়ে অবশেষ পিএসজির সঙ্গে খুব শিগগিরই নতুন চুক্তিতে স্বাক্ষর করবেন। জানা গেছে, রিয়ালের কাছ থেকে সন্তোষজনক প্রস্তাবই পেয়েছিলেন। আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে এমবাপের জন্য আনুষ্ঠানিক প্রস্তাবনাও তৈরি করেছিলেন। যার আলোকে চুক্তিতে স্বাক্ষর করা বাকি শুধু।

কিন্তু একই সঙ্গে জানা গিয়েছিল, প্রায় একই প্রস্তাব দিয়েছে পিএসজিও। এমবাপের মা জানিয়েছিলেন, দুই পক্ষ থেকেই প্রায় একই প্রস্তাব এসেছে। এখন এমবাপে নিজেই সিদ্ধান্ত নেবে, সে রিয়ালে যাবে নাকি পিএসজিতে থাকবে?


শেষ পর্যন্ত রিয়াল মাদ্রিদের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলেন কিলিয়ান এমবাপে। শুধু তাই নয়, পিএসজির সঙ্গে ২০২৫ সাল পর্যন্ত নতুন চুক্তি করতেও রাজি হয়ে গেছেন তিনি। রিয়াল মাদ্রিদের প্রেসডিন্ট ফ্লোরেন্তিনো পেরেজকে এক চিঠিতে রিয়াল মাদ্রিদে না যাওয়ার কথা জানান এমবাপ্পে।

চিঠিতে তিনি লিখেছেন, ‘প্রিয় ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ, আমি আপনাকে জানাচ্ছি, আমি পিএসজিতে থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আপনি রিয়াল মাদ্রিদে খেলার জন্য আমাকে যে সুযোগটি দিয়েছিলেন সেজন্য ধন্যবাদ জানাতে চাই। জেনে খুশি হবেন, ছোটকাল থেকেই আমি এই ক্লাবের ভক্ত। আশা করছি আপনি আমার সিদ্ধান্তটাকে সম্মান করবেন। চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালের জন্য শুভকামনা।’

আগামী মৌসুমের শুরু থেকে রিয়াল মাদ্রিদে এমবাপ্পে খেলবেন তা প্রায় নিশ্চিত ছিল। কিন্তু মৌসুম শেষ হওয়ার ঠিক আগে পিএসজি তাদের সেরা খেলোয়াড়ের দলবদল আটকে দিল। বলার অপেক্ষা রাখে না, রিয়াল মাদ্রিদের থেকেও ভালো অফার পাওয়ায় আরো তিন মৌসুম মেসি ও নেইমারের সঙ্গে খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ২৩ বছর বয়সী বিশ্বকাপজয়ী তারকা।

 

মৌসুম সেরা ডি ব্রুইনা, সেরা উদীয়মান ফোডেন
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক

২০২১-২২ প্রিমিয়ার লিগের পর্দা নামবে রোববার। তার আগে মৌসুমের সেরা খেলোয়াড়দের নাম ঘোষণা করেছে প্রিমিয়ার লিগ। এক মৌসুম বিরতিতে দ্বিতীয়বারের মতো মৌসুমের সেরা খেলোয়াড় হয়েছেন ম্যানচেস্টার সিটির বেলজিয়ান মিডফিল্ডার কেভিন ডি ব্রুইনা। আর টানা দ্বিতীয়বারের মতো মৌসুম সেরা উদীয়মান খেলোয়াড়ের পুরস্কারটি উঠেছে ম্যানচেস্টার সিটিরই মিডফিল্ডার ফিল ফোডেনের হাতে।

ডি ব্রুইনার এই পুরস্কারের মাধ্যমে টানা তিনবার মৌসুম সেরার পুরস্কার গেলো ম্যানচেস্টার সিটির ঘরে। ২০১৯-২০ মৌসুমে সিটি লিগ জিততে অসমর্থ হলেও ডি ব্রুইনা ঠিকই তার অসাধারণ পারফরম্যান্সের সুবাদে মৌসুম সেরার খেতাব জিতে নেন।
২০২০-২১ এ ম্যান সিটির পর্তুগিজ ডিফেন্ডার রুবেন দিয়াজ লিগে নিজের প্রথম মৌসুমেই জিতে নেন এই পুরস্কার। আর এক মৌসুম বিরতিতে ফের এই পুরস্কার জিতে নিলেন ডি ব্রুইনা।

প্রিমিয়ার লিগ পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে রয়েছে ডি ব্রুইনার দল ম্যান সিটি। টানা দ্বিতীয়বার লিগ জেতার দ্বারপ্রান্তে দলটি। দলের এই সাফল্যযাত্রায় ডি ব্রুইনার অবদান অনেক। চলতি মৌসুমে এখন পর্যন্ত ১৫ গোল করেছেন এই বেলজিয়ান, আর গোল বানিয়ে দিয়েছেন ৭ টি। প্রিমিয়ার লিগ ওয়েবসাইটে সাধারণ ফুটবল সমর্থক এবং লিগের সব দলের অধিনায়ক ও ফুটবল বিশেষজ্ঞদের ভোটে এই পুরস্কারের জন্য নির্বাচিত হয়েছেন ডি ব্রুইনা।
এছাড়া টানা দ্বিতীয়বারের মতো প্রিমিয়ার লিগের সেরা উদীয়মান খেলোয়াড় হয়েছেন ম্যান সিটির ইংলিশ মিডফিল্ডার ফোডেন। পায়ের চোটে মৌসুমের প্রথম এক মাস মিস করলেও ফিরেই নিজের জহর দেখিয়েছেন ২১ বছর বয়সী এই ফুটবলার। গত মৌসুমের ন্যায় এবারও ৯ গোল করেছেন তিনি, আর লিগে তার অ্যাসিস্ট সংখ্যা ৫। এই পুরস্কারের পথে চেলসির ম্যাসন মাউন্ট ও ওয়েস্ট হ্যামের ডেকলান রাইসদের পেছনে ফেলেছেন ফোডেন।

বরুসিয়ার সবাইকে হরলান্ড দিলেন দামি ঘড়ি
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
জার্মান বুন্দেসলিগার বরুসিয়া ডর্টমুন্ড ছেড়ে ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটিতে নাম লিখিয়েছেন আর্লিং হরলান্ড। এরই মধ্যে জার্মান ক্লাবটির হয়ে নিজের শেষ ম্যাচ খেলেছেন, ভক্তদের কাছ থেকেও বিদায় নিয়েছেন। অপেক্ষা কেবল সিটির জার্সি গায়ে ইত্তিহাদ স্টেডিয়ামে নামা। সেটাও কিছুদিনের মধ্যে হয়ে যাবে।

এদিকে, ডর্টমুন্ডের সদ্য সাবেক হওয়া সতীর্থ, কোচিং স্টাফ, চিকিৎসক দল ও সাপোর্ট স্টাফ সহ সবাইকে দামি ঘড়ি উপহার দিয়ে নতুন করে আলোচনায় হরলান্ড। মোট ৫৩ জনকে ঘড়ি উপহার দিতে তার খরচ হয়েছে প্রায় ৫ লাখ ৮০ হাজার ইউরো!

ডর্টমুন্ডের ৩৩ সতীর্থের প্রত্যেককে একটি করে দামি রোলেক্স ঘড়ি দিয়েছেন নরওয়েজিয়ান স্ট্রাইকার। আর কোচিং স্টাফ, চিকিৎসক দল সহ ২০ জন সাপোর্ট স্টাফের প্রত্যেককে একটি করে ওমেগা ঘড়ি। এসবের মূল্য বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৫ কোটি ৪০ লাখ টাকা।

ইতিহাসে প্রথমবার নারী রেফারি চালাবেন বিশ্বকাপ
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
ফুটবল বিশ্বকাপের ৯২ বছরের ইতিহাসে যা হয়নি কখনো, সেটাই হতে চলেছে এইবার। ইতিহাসে প্রথমবারের মতো কোনো নারী রেফারির হাতে থাকবে ম্যাচের দায়িত্ব। আজ এক বিবৃতিতে বিষয়টি ফিফা জানিয়েছে, ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে রেফারিদের প্যানেলে আছেন তিনজন করে নারী রেফারি ও সহকারী রেফারি।

টুর্নামেন্টের জন্য আজ ৩৬ জন রেফারি, ৬৯ জন সহকারী রেফারি, ২৪ ভিডিও ম্যাচ অফিসিয়াল নিয়োগ করা হয়েছে। ইংলিশ রেফারি অ্যান্থনি টেলর, মাইকেল অলিভার আছেন তাদের মধ্যে। তবে টুর্নামেন্টের ভিএআর অফিসিয়ালদের মধ্যে কেউ অবশ্য ইংলিশ নন/

ছয় নারী রেফারির বিশ্বকাপের দায়িত্ব পাওয়াকে দেখা হচ্ছে খেলাটার জন্য নতুন দিনের সূচনা হিসেবে। কারণ বিশ্বকাপের এই মেগা ইভেন্টে যে আগে কখনো কোনো নারী রেফারি পাননি ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্ব!

বিশ্বকাপের দায়িত্ব পাওয়া তিন নারী রেফারি হলেন ফরাসি স্টেফানি ফ্র্যাপা, রুয়ান্ডার সালিমা মুকাসাঙ্গা, ও জাপানের ইয়োশিমা ইয়ামাশিতা। সহকারী রেফারি হিসেবে আছেন ব্রাজিলের নিউজা ব্যাক, মেক্সিকোর কারেন ডিয়াজ মেদিনা, ও যুক্তরাষ্ট্রের ক্যাথেরিন নেসবিট।

তবে তালিকায় নাম থাকলেও এখনো নিশ্চিত নয় রেফারিদের মাঠে নামার বিষয়টি। আগামী ২১ নভেম্বর বিশ্বকাপ শুরুর আগে বিভিন্ন টুর্নামেন্টে রেফারিদের পারফর্ম্যান্স নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করা হবে। সেখানে ভালো করলে তবেই মিলবে বিশ্বকাপে ম্যাচ পরিকল্পনার দায়িত্ব।

এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার পেছনে ফিফা রেফারিজ কমিটির প্রধান পিয়েরলুইজি কলিনা বলেন, ‘এর মাধ্যমে অনেক বড় একটা প্রক্রিয়ার ইতি ঘটল। অনেক বছর আগে এই প্রক্রিয়া শুরু হয়েছিল ফিফার বালক টুর্নামেন্ট ও বিভিন্ন সিনিয়র টুর্নামেন্টে নারী রেফারিদের দায়িত্ব দিয়ে। এর মাধ্যমে আমরা এটা জোর দিয়ে বলতে চাই যে কাজের ক্ষেত্রে আমরা কেবল কর্মীর গুণটাই দেখি, তার লিঙ্গ নয়।’

তিনি আরও যোগ করেন, ‘আমি আশা করি ভবিষ্যতে পুরুষদের গুরুত্বপূর্ণ প্রতিযোগিতায় এলিট নারী রেফারিদের অংশগ্রহণকে স্বাভাবিক হিসেবেই ধরা হবে, বিষয়টা আর চমকপ্রদ কিছু হবে না।’

নর্ডিক দেশগুলোর ন্যাটোয় যোগদানে যুক্তরাষ্ট্র আস্থাশীল
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
তুরস্কের জোরালো প্রতিবাদ সত্ত্বেও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বুধবার বলেছে, তারা আস্থাশীল যে ফিনল্যান্ড এবং সুইডেন ন্যাটোর অংশ হয়ে উঠবে। ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসনের প্রেক্ষিতে এই সম্প্রসারণ নাটকীয়ভাবে ইউরোপীয় নিরাপত্তাকে পুনর্গঠন করবে।

এটি বর্বর সংঘাতের প্রতিফলন যা ট্রান্সআটলান্টিক জোটকে পুনরুজ্জীবিত করেছে, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি রাশিয়ার আগ্রাসন শুরুর পর ইউক্রেন প্রথম রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের বিচার শুরু করেছে। ইউক্রেনের একজন বেসামরিক নাগরিককে ঠান্ডা মাথায় হত্যার জন্য ২১ বছর বয়সী রাশিয়ান এক সৈন্যকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট দেশটির সীমান্ত সম্পসারণের মাধ্যমে ন্যাটোকে বিরক্তিকর পরিস্থিতির দিকে ঠেলে দিতে ইউক্রেন আগ্রাসনের মাধ্যমে ১২ সপ্তাহের যুদ্ধে হাজার হাজার লোক হত্যার পর কিয়েভ তার মাটিতে নৃশংসতার জন্য বিচার বিভাগীয় কার্যক্রম শুরু করেছে।
কয়েক দশকের জোট নিরপেক্ষ থাকার সিদ্ধান্ত ত্যাগ করে ফিনল্যান্ড এবং সুইডেন ব্রাসেলস-এ সদর দফতরে সামরিক ন্যাটো জোটে যোগদানের জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে একটি যৌথ আবেদন জমা দিয়েছে।

নর্ডিক দেশগুলোর প্রতি জোরালো সমর্থন দিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেছিলেন তিনি তাদের ন্যাটো জোটে অন্তর্ভুক্তিকে ‘দৃঢ়ভাবে’ সমর্থন করেন এবং আবেদন প্রক্রিয়া চলাকালীন ‘আগ্রাসন’ এর ক্ষেত্রে মার্কিন সমর্থনের প্রস্তাব দেন।

ইউক্রেনের পাশে দৃঢ়ভাবে দাঁড়ানোর ব্যাপারে ওয়াশিংটনের সংকল্পের স্মারক হিসেবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র কিয়েভে তার দূতাবাস তিন মাস বন্ধ থাকার পর পুনরায় চালু করেছে।
ন্যাটোতে আবেদন প্রতিক্রিয়ায় ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, এতো তাড়াতাড়ি তিনি এটি আশা করেননি, কিন্তু পুতিনের ভয়ংকর উচ্চাকাক্সক্ষা আমাদের মহাদেশের ভূ-রাজনৈতিক রূপ বদলে দিয়েছে।

ন্যাটোয় যোগদান প্রক্রিয়া ন্যাটো সদস্য তুরস্কের কঠোর প্রতিরোধের সম্মুখীন হয়। তুরস্ক অভিযোগ করেছে, নর্ডিক প্রতিবেশী দেশগুলো তুর্কি বিরোধী চরমপন্থ’ীদের আশ্রয় দিচ্ছে। প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান তার সরকারের উদ্বেগের প্রতি ন্যাটোর কাছে ‘সম্মান’ দেখনোর দাবি করেন।

তাইজুল জোড়া আঘাতে ফিরালেন কুশল-ম্যাথিউসকে
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক
চট্টগ্রাম টেস্টে জয়ের সুবাতাস পাচ্ছে বাংলাদেশ দল। পঞ্চম ও শেষদিনের শুরুতে স্বাগতিক বোলারদের ওপর চড়াও হয় শ্রীলঙ্কান ব্যাটসম্যানরা। সেই চাপ কাটিয়ে আবার খেলার নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে অধিনায়ক মুমিনুল হকের দল। জোড়া আঘাতে বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম ফিরিয়েছেন কুশল মেন্ডিস আর অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউসকে।

টেস্টের প্রথম ইনিংসে শ্রীলঙ্কাকে ৩৯৭ রানে গুটিয়ে বাংলাদেশ দলের প্রথম ইনিংস থামে ৪৬৫ রানে। এতে ৬৮ রানের লিড পায় স্বাগতিকরা। ম্যাচের চতুর্থ দিনের তৃতীয় সেশনে ১ ঘণ্টার মতো ব্যাটিং করে ২ উইকেট হারিয়ে স্কোর বোর্ডে ৩৯ রান তুলতে পেরেছে সফরকারীরা। এতে দিনের খেলা শেষে ২৯ রানের লিডে থাকে টাইগাররা।

বৃহস্পতিবার সকালে সেই লিড পরিশোধ করে শ্রীলঙ্কা দল নিজেরা লিড নিয়েছে। দিমুথ করুনারত্নে ১৮ রানে অপরাজিত থেকে আজ ব্যাটিংয়ে নামেন, তাকে সঙ্গ দিতে আসেন নতুন ব্যাটসম্যান কুশল মেন্ডিস। নিজেদের ওপর থেকে চাপ সরাতে শুরু থেকে বাংলাদেশি বোলারদের ওপর চড়াও হন শ্রীলঙ্কার এই দুই ব্যাটসম্যান। অর্ধশতকের পথে ছুটতে থাকা কুশলকে ফেরান তাইজুল।

পানি-পানের বিরতির পর লঙ্কান ইনিংসের ৩২তম ওভারের দ্বিতীয় বলটি পা বাড়িয়ে ডিফেন্স করেন মেন্ডিস। কিন্তু লেংথে পড়ে টার্ন করা বলে ব্যাট ছোঁয়াতে পারেননি তিনি। ব্যাট পেরিয়ে বেরিয়ে যেতে যেতে শেষ মুহূর্তে মেন্ডিসের অফ স্টাম্পে ছোবল দেয় বল। ৪৩ বলে ৪৮ রান করে ফিরলেন মেন্ডিস।

আক্রমণ অব্যহত রাখা এই বাঁহাতি আবার সফলতার দেখা পান ইনিংসের ৩৬তম ওভারে। এবার তার শিকার প্রথম ইনিংসে ১৯৯ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলা ম্যাথিউস। দ্বিতীয় ইনিংসে অবশ্য রানের খাতা খুলতে পারেননি এই ডানহাতি। তাইজুলকে ফিরতি ক্যাচ দেন শূন্য হাতে।

এই প্রতিবেদন লেখার সময় ৪ উইকেট হারিয়ে লঙ্কানদের সংগ্রহ ১১৪ রান। ৪৬ রানের লিড নিয়ে ব্যাট করছে সফরকারীরা। যেখানে করুনারত্নে অপরাজিত আছেন ৪২ রানে, ০ রানে ব্যাট করছেন ধনঞ্জয়া ডি সিলভা।

 

মুশফিকের শতক ও লিডের পর দুই উইকেট নিলো বাংলাদেশ
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক

আশিদা ফার্নান্দোর বলটা ব্যাটের কানায় লেগেছিল মুশফিকুর রহিমের। লেগ স্লিপ দিয়ে সেটা পার হয় সীমানা দড়ি। তখনও রান নেওয়ার জন্য দৌড়াচ্ছিলেন মুশফিক। বাউন্ডারিটা নিশ্চিত হতেই তিনি উল্টো ফিরলেন, বোলার আশিদা ফার্নান্দোকে দেখালেন ‘অ্যাগ্রেশন’। এই আক্রমণটা অবশ্য থাকল না তার ব্যাটে। ক্যারিয়ারের অষ্টম সেঞ্চুরিটা পেয়েছেন, তবে ম্যাচটাকে ড্রয়ের দিকে নিয়ে যাওয়ার বড় কৃতিত্বটাও মুশফিকেরই। বাংলাদেশ অবশ্য পেয়েছে লিড, ম্যাচের শেষদিনে শ্রীলঙ্কার চেয়ে ২৯ রানে এগিয়ে থেকেই মাঠে নামবেন মুমিনুলরা। শেষ বিকেলে প্রতিপক্ষের দুই উইকেট নিয়ে বাংলাদেশকে স্বস্তি এনে দিয়েছেন বোলাররা। শ্রীলঙ্কার পক্ষে ৪৫ বলে ১৮ রান করে অপরাজিত আছেন করুণারত্নে।

৩ উইকেট হারিয়ে ৩১৮ রান নিয়ে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরি স্টেডিয়ামে চতুর্থ দিন শুরু করে বাংলাদেশ, বৃষ্টির কারণে এদিন খেলা শুরু হয়েছিল আধঘণ্টা পরে। আগের দিন দারুণ ছন্দ থাকা মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস পার করেন পুরো প্রথম সেশন। রান অবশ্য তুলতে পেরেছিলেন কেবল ৬৭।

সেঞ্চুরির পথে থেকে লাঞ্চে যান দুজনেই। কিন্তু সেখান থেকে ফিরে যেন মতিভ্রম হয় লিটনের। রাজিথার করা প্রথম বলে জায়গায় দাঁড়িয়ে অফ স্টাম্পের অনেক বাইরের বলে শট খেলতে যান তিনি। যা হওয়ার তা-ই হয় তাতে! উইকেটের পেছনে দাঁড়িয়ে থাকা নিরোশান ডিকভেলার হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে ১৮৯ বলে ৮৮ রান করে আউট হন লিটন।

তৃতীয় দিনে ১৩৩ রানে অপরাজিত থেকে রিটায়ার্ড হার্ট হয়েছিলেন তামিম। লিটনের বিদায়ের পর ক্রিজে আসেন তিনি। নিজের ইনিংসটাকে অবশ্য আর লম্বা করতে পারেননি এই ওপেনার। রাজিথার বলের লাইন মিস করে বোল্ড হন। ১৫ চারে ২১৮ বলে ১৩৩ রানেই ইতি হয় তামিমের ১০ম টেস্ট সেঞ্চুরির।

সাকিব আল হাসানও ৩ চারে ৪৪ বলে ২৬ রানেই সাজঘরে ফেরত যান। মুশফিকুর রহিম অবশ্য তুলে নেন ক্যারিয়ারের অষ্টম সেঞ্চুরি। কিন্তু যখনই ইনিংসটাকে লম্বা করার সময়, তখন মুশফিক ফেরেন সুইপ খেলতে গিয়ে। ২৮২ বলের ইনিংসে ৪টি চার মেরে ১০৫ রানেই থামেন তিনি।

এরপর বাংলাদেশের ইনিংস শেষ হতে আর বেশি সময় লাগেনি। ৪৫ বলে ২০ রান করে আউট হন তাইজুল ইসলাম। শরিফুল আঘাত পেয়ে হন রিটায়ার্ড হার্ট। ৪৬৫ রানে অলআউট হয়ে যায় বাংলাদেশ। লিড পায় ৬৮ রানের।

লঙ্কানদের পক্ষে ২৪ ওভার ১ বল হাত ঘুরিয়ে ৬০ রান দিয়ে ৪ উইকেট নেন রাজিথা। আশিদা ফার্নান্দো তিন আর ধনঞ্জয়া ডি সিলভা ও লাসিথ এম্বোলদোনিয়া নেন একটি করে উইকেট।

শেষ বিকেলে ব্যাটিংয়ে নামে শ্রীলঙ্কাও। তাদের শুরুটাও অবশ্য খুব একটা ভালো হয়নি। অধিনায়ক দিমুথ করুণারত্নের সঙ্গে ভুল বুঝাবুঝিতে রান আউট হয়ে ফেরেন ওশাদা ফার্নান্দো। তাইজুলের ডিরেক্ট হিটে ফেরার আগে ৩৬ বলে ১৯ রান করেন তিনি।

এরপর টাইগারদের আরও এক উইকেট এনে দেন তাইজুলই। এবার অবশ্য বল হাতে। লাসিথ এম্বোলদোনিয়াকে করা তার বল অফ স্টাম্পের অনেক বাইরে পড়ে আঘাত হানে স্টাম্পে। তার এই আউটে যেন ইঙ্গিতই মিলল, স্পিনারদের জন্য ইতোমধ্যেই কার্যকরী হতে শুরু করেছে উইকেট। এমনটা হলে পঞ্চম দিনে বেশ রোমাঞ্চই ছড়ানোর কথা চট্টগ্রাম টেস্ট।

সেঞ্চুরির পর মুশফিকের স্ত্রীর প্রশ্ন, আপনাদের রিপ্লেসমেন্ট আছে তো?
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক
সম্প্রতি তাকে ঘিরে সমালোচনা হচ্ছিল। তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেটের মি. ডিপেন্ডেবল খ্যাত মুশফিকুর রহিম। বেশ কয়েক সিরিজ ধরেেই তার ব্যাটে বড় রানের দেখা মিলছিল না। সেই আলোচনায় জল ঢেলে দেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। কয়েকদিন আগে তিনি বলেন, ‘রিয়াদ টেস্ট থেকে সরে এসেছে। তামিম টি-টোয়েন্টি খেলছে না। মুশফিক এখনও খেলছে, আমি নিশ্চিত ওর সিদ্ধান্তও জানা যাবে। ও নিশ্চয়ই চিন্তাভাবনা করছে। আমরা চাই না আমাদের খেলোয়াড়রা মন খারাপ করুক। তারা হাসিমুখে খেলুক।’

এরপর থেকেই কোনো ফরম্যাট থেকে সরে দাড়াবেন মুশফিক সেই গুঞ্জন উঠতে থাকে। টেস্ট এবং টি-২০ ফরম্যাটে রান খরা যাচ্ছিল তার। টি-২০ থেকে তার বাদ পড়ার গুঞ্জনও ক্রিকেট পাড়ায় জোরালো। দুই বছর টেস্টে সেঞ্চুরি পাননি দেশসেরা টেস্ট ব্যাটার। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্টে ওই রান খরা কেটেছে তার।

ক্রিজে মাথা পুতে পড়ে থেকে রোদ-বৃষ্টি সামলে মুশি খেলেছেন ২৮২ বলে ১০৫ রানের ইনিংস। ক্যারিয়ারের অষ্টম টেস্ট সেঞ্চুরি পেয়েছেন। প্রথম বাংলাদেশি ব্যাটার হিসেবে টেস্টে ৫ হাজার রান পূর্ণ করার কীর্তি গড়েছেন। মাত্র চারটি চারের মারে ওই ইনিংস খেলে অনেক প্রশ্নের উত্তর দিয়ে দিয়েছেন মুশি।

স্বামীর সেঞ্চুরির পরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার স্ত্রী জান্নাতুল মন্ডি ছুড়ে দিয়েছেন প্রশ্ন। মুশফিক সরে গেলে বা বিদায় নিলে বোর্ডের হাতে বিকল্প আছে কিনা সেই প্রশ্ন তুলেছেন তিনি। নিজের ইনস্টাগ্রামে মুশফিকের স্ত্রী মন্ডি লিখেছেন, ‘আমরা হাসি মুখেই বিদায় নেব ইনশাআল্লাহ! তবে আপনাদের রিপ্লেসমেন্ট (বিকল্প) আছে তো? সেদিকেও একটু নজর দিলে বাংলাদেশ ক্রিকেটের উন্নয়ন হতো!’

মুশফিকের স্ত্রীর এমন পোস্টের পর সমর্থকদেরও আর বুঝতে বাকি নেই, ক্ষোভ বা হতাশার জায়গা থেকেই এমন প্রশ্ন ছুড়ে দিয়েছেন তিনি।

সেঞ্চুরিতেই সমালোচনার জবাব দিলেন মুশফিক
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক
বেশ কিছুদিন ধরেই বাইশ গজে সময়টা খুব একটা ভালো যাচ্ছিল না মুশফিকের রহিমের। সম্প্রতি এনিয়ে আলোচনার শেষ নেই! খোদ বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সভাপতিও ইঙ্গিত দিয়েছেন, সিদ্ধান্ত এবার নিজেকেই নিতে হবে অভিজ্ঞ এই ব্যাটসম্যানকে। কী সেই সিদ্ধান্ত?

সে নিয়ে জলঘোলা কম যাচ্ছে না। সব আলোচনা যেন তাতিয়ে দিয়েছে মুশফিক। চট্টগ্রাম টেস্টে স্বস্তির সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে যেন তারই জাবাব দিলেন তিনি। মুশফিকের এই সেঞ্চুরি এসেছে ২৭০ বলে।

সাদা পোশাক গায়ে এটি তার অষ্টম আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরি। টেস্টে বাংলাদেশের পক্ষে তৃতীয় সর্বোচ্চ। অন্য ফরম্যাটের মতো টেস্টেও ধারাবাহিকতার অভাবে ভুগছে মুশফিকের ব্যাট। শেষ ৯ ইনিংসে অর্ধশতক মাত্র ১টি। শেষবার সেঞ্চুরি পেয়েছেন ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে।

দীর্ঘ প্রায় ২৭ মাস পর আবার শতকের দেখা পেলেন তিনি। এই দুই সেঞ্চুরির মাঝে কেটে গেছে ১৮ ইনিংস আর ১০ ম্যাচ।

টেস্টে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এটি মুশফিকের দ্বিতীয় শতক। আগেরটি এসেছিল ২০১৩ সালে লঙ্কান দ্বীপপুঞ্জে। সেই শতককে ডাবলে রূপ দিয়েছিলেন তিনি। এবার কোথায় গিয়ে থামেন এই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান, এখন সেটিই দেখার অপেক্ষা।

তিন বছর পর টেস্টে সেঞ্চুরি পেলেন তামিম
                                  

স্বাধীন বাংলা প্রতিবেদক
টেস্টের ওপেনিং জুটিতে দীর্ঘ পাঁচ বছর পর শতরানের দেখা পেল বাংলাদেশ। তামিম ইকবাল ও মাহমুদুল জয়ের উদ্বোধনী জুটিতে বাংলাদেশ সংগ্রহ করে ১৬২ রান। সর্বশেষ ২০১৭ সালে গলে এই শ্রীলংকার বিপক্ষেই ওপেনিং জুটিতে ১১৮ রান তুলেছিলেন সৌম্য সরকার ও তামিম। আজ চট্টগ্রাম স্টেডিয়ামে ৫৮ রান করা জয়কে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিতে বাধ্য করে এই জুটি ভাঙেন আশিথা ফার্নান্দো।

তবে তামিম সেঞ্চুরি পেয়েছেন। সেঞ্চুরির দেখা পেতে ১৬২ বল খেলেছেন তিনি। এটি তার ১০ম সেঞ্চুরি। তিন বছর পর টেস্টে সেঞ্চুরির দেখা পেলেন এই ব্যাটার। দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে এখন ব্যাট করছেন তামিম ইকবাল ও নাজমুল হোসেন শান্ত। টেস্টে বাংলাদেশের পক্ষে সবচেয়ে বেশি রানের রেকর্ড নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে তামিমের সঙ্গে মিউজিক্যাল চেয়ার খেলছেন মুশফিক।

সোমবার দিনশেষে ৩৫ রানে অপরাজিত থাকা তামিম আজ সকালেই তুলে নেন ক্যারিয়ারের ৩২তম অর্ধশতক। তবে তামিম থামেননি সেখানেই। দেখেশুনে খেলেছেন। তবে বাজে বল পেলে সাজা দিতেও ভুল করেননি এই ড্যাশিং ওপেনার। রমেশ মেন্ডিসের ওভারে চার মেরে অর্ধশতক পূরণ করেন তামিম। তার কিছুক্ষণ পরেই বাংলাদেশের ইনিংস ছোঁয় শতরানের ঘর।

এর পর ৮৫ রানে পৌঁছে তামিম ছাড়িয়ে যান মুশফিককে। ৬৬ টেস্টে তামিমের সংগ্রহ চার হাজার ৯৩৬। বাংলাদেশের পক্ষে টেস্টে সবচেয়ে বেশি রান এখন তামিমের। চার হাজার ৯৩২ রান নিয়ে দুইয়ে মুশফিক। ৫৯ টেস্টে সাকিব আল হাসানের সংগ্রহ চার হাজার ২৯ রান। ৫০ টেস্টে তিন হাজার ২৬ রান করেছেন হাবিবুল বাশার।

এই রিপোর্ট লেখাকালীন ৬৬ ওভারে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ২০৩ রান।

পিএসজি থেকে বাদ মেসি-সতীর্থ ইদ্রিসা গানা গেই
                                  

স্বাধীন বাংলা ডেস্ক
টানা তিন ড্রয়ের পর গত রোববার রাতে লিওনেল মেসির জোড়া গোলে ৪-০ গোলে মঁপেলিয়েকে উড়িয়ে দিয়ে জয়ে ফিরেছে পিএসজি। সেই ম্যাচটা বিশেষ ছিল আরেক কারণে। সেই ম্যাচে পিএসজি নেমেছিল বিশেষ এক জার্সি পরে, যেখানে মেসি-এমবাপেদের জার্সির ফন্টের রঙ গিয়েছিল বদলে।

সাধারণত সাদা রঙে নাম আর জার্সি নম্বর লেখা হলেও সেই ম্যাচে হরফগুলো বদলে গিয়েছিল সাত রঙে, যা মূলত সমকামী, উভকামী, ও রূপান্তরকামীদের (এলজিবিটি) সমর্থনে করা হয়েছিল। সেই সমর্থনটাই করতে চাননি মেসিদের সতীর্থ ইদ্রিসা গানা গেই। যার ফলে ফরাসি দলটির স্কোয়াড থেকেই বাদ দেওয়া হয়েছে তাকে, জানাচ্ছে ফরাসি সংবাদ মাধ্যম।

সাবেক এভারটন মিডফিল্ডার গেই পিএসজির সঙ্গে দক্ষিণ ফ্রান্সের শহর মঁপেলিয়ে পর্যন্ত গিয়েছেন বটে, তবে ম্যাচের স্কোয়াড প্রকাশ করতেই দেখা গেল গেই নেই তাতে। তাতেই ওঠে গুঞ্জন। এরপর যার মাত্রা আরও বাড়ে কোচ মরিসিও পচেত্তিনোর কথাতে। আর্জেন্টাইন এই কোচ জানান, ‘তাকে ব্যক্তিগত কারণে স্কোয়াড থেকে ছেড়ে দিতে হয়েছে। তবে সে চোট পায়নি।’

গেই’র এভাবে হঠাৎ স্কোয়াড থেকে বাদ পড়াটা প্রশ্ন তুলেছে বেশ। ফরাসি সংবাদ মাধ্যম আরএমসি স্পোর্ত জানাচ্ছে, এই ‘ব্যক্তিগত কারণ’টা মূলত সমকামী, উভকামী, রূপান্তরকামীদের সমর্থনে রংধনু রঙা জার্সি পরতে অস্বীকৃতি। ১৭ মে এলজিবিটি ফোবিয়া বিরোধী দিবসকে সামনে রেখে ফরাসি লিগে গত রাউন্ডের ম্যাচগুলোতে সব দলের ফন্টেই এসেছিল এই পরিবর্তন।

গেল মৌসুমেও ১৭ মে’র সব ম্যাচে খেলোয়াড়দের নাম আর জার্সি নম্বর লেখা হয়েছিল রংধনু রঙে। উল্লেখ্য, গেল মৌসুমে এই ম্যাচে পিএসজি খেলেছিল রেঁসের বিপক্ষে। সেই ম্যাচেও দলে ছিলেন না গেই। লে’কিপে ও ল্য পারিসিয়েন অবশ্য জানিয়েছিল, ‘পেটের সমস্যার’ কারণে তিনি খেলেননি সেই ম্যাচ। তবে এবার এই ঘটনার পুনরাবৃত্তিতে গুঞ্জন মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে ফরাসি সংবাদ মাধ্যমে।

গেল ম্যাচে না খেলার ফলে সৃষ্ট এই গুঞ্জন অবশ্য গেই’র প্রতিনিধিরা অস্বীকার করেছেন। তবে এরপর থেকে এই পর্যন্ত আনুষ্ঠানিক কোনো বিবৃতি দেননি সেনেগালিজ ইসলাম ধর্মালম্বী এই মিডফিল্ডার।

উল্লেখ্য, আফ্রিকান এই ফুটবলার ব্যক্তিগত জীবনে ইসলাম ধর্মাবলম্বী, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ বিষয়ে নানা পোস্টও দিয়ে থাকেন তিনি। বেশ কিছু ইসলামিক দেশে সমকামিতা, উভকামিতাকে শাস্তিযোগ্য অপরাধ হিসেবে গণ্য করা হয়, কিছু কিছু জায়গায় মৃত্যুদণ্ডও দেওয়া হয়। আর গেই’র দেশ সেনেগালে অবশ্য বিষয়টি অত বড় ‘অপরাধ’ নয়, তবে প্রমাণিত হলে ৫ বছরের কারাদণ্ডে ভোগ করতে হয়।

এনইউ/এটি


   Page 1 of 74
     খেলাধূলা
রিয়ালকে ফাইনালে নাস্তনাবুদ করল বার্সা
.............................................................................................
সালাহকে রিয়াল কোচের হুঁশিয়ারি
.............................................................................................
ফেসবুকে আবার লিখলেন মুশফিকের স্ত্রী
.............................................................................................
এশিয়া কাপ হকি, ভারত পাক ম্যাচের ফল সমান
.............................................................................................
রাজনীতির জল্পনা নিয়ে মুখ খুললেন কপিল দেব
.............................................................................................
রিয়ালের প্রস্তাব ফিরিয়ে পিএসজিতই এমবাপে
.............................................................................................
মৌসুম সেরা ডি ব্রুইনা, সেরা উদীয়মান ফোডেন
.............................................................................................
বরুসিয়ার সবাইকে হরলান্ড দিলেন দামি ঘড়ি
.............................................................................................
ইতিহাসে প্রথমবার নারী রেফারি চালাবেন বিশ্বকাপ
.............................................................................................
নর্ডিক দেশগুলোর ন্যাটোয় যোগদানে যুক্তরাষ্ট্র আস্থাশীল
.............................................................................................
তাইজুল জোড়া আঘাতে ফিরালেন কুশল-ম্যাথিউসকে
.............................................................................................
মুশফিকের শতক ও লিডের পর দুই উইকেট নিলো বাংলাদেশ
.............................................................................................
সেঞ্চুরির পর মুশফিকের স্ত্রীর প্রশ্ন, আপনাদের রিপ্লেসমেন্ট আছে তো?
.............................................................................................
সেঞ্চুরিতেই সমালোচনার জবাব দিলেন মুশফিক
.............................................................................................
তিন বছর পর টেস্টে সেঞ্চুরি পেলেন তামিম
.............................................................................................
পিএসজি থেকে বাদ মেসি-সতীর্থ ইদ্রিসা গানা গেই
.............................................................................................
দিবালার ঘোষণা এই মৌসুমই শেষ জুভেন্টাসে
.............................................................................................
চট্টগ্রামে ম্যাথিউসের সেঞ্চুরিতে পিছিয়ে রাখল বাংলাদেশকে
.............................................................................................
ফেয়ারব্রেক টুর্নামেন্টের ফাইনালে জাহানারার ফ্যালকন
.............................................................................................
অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটার অ্যান্ড্রু সায়মন্ডস নিহত
.............................................................................................
টসে হেরে ফিল্ডিংয়ে বাংলাদেশ
.............................................................................................
সাকিব আজ কঠিন পরীক্ষার সম্মুখীন হবেন
.............................................................................................
সাকিবের করোনা নেগেটিভ, খেলবেন চট্টগ্রাম টেস্টে
.............................................................................................
শেখ রাসেল পারিশ্রমিক দেয়নি, বিসিবি`কে জানালো ৫ নারী ক্রিকেটার
.............................................................................................
হালান্ডের সাথে চুক্তি চূড়ান্ত করলো সিটি
.............................................................................................
জাতীয় ক্রীড়া পুরস্কার প্রদান করলেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
সাকিবকে যখন দরকার তখন আমরা পাই না : পাপন
.............................................................................................
৭৫ মিলিয়ন ইউরোর সওদায় আর্লিং হালান্ড ম্যান সিটিতে
.............................................................................................
সব থেকে বেশি ম্যাচ হারের রেকর্ড মুম্বাইয়ের
.............................................................................................
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জেতা-হারার প্রশ্ন তুলছে না বাংলাদেশ
.............................................................................................
শ্রীলঙ্কা বধে মশগুল কৌশলি নাঈম
.............................................................................................
আইপিএল ছেড়ে বাংলাদেশে আসছেন লঙ্কান পেসার
.............................................................................................
সোমবারই কি শেষ কলকাতার আইপিএল অভিযান
.............................................................................................
বাগদাদে রোমানরা বড় পীরের মাজার দর্শনে
.............................................................................................
ঢাকায় পৌঁচেছে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দল
.............................................................................................
টটেনহাম লিভারপুল ম্যাচ ড্র ক্লপের অস্বস্তি
.............................................................................................
জাহানারাদের কাছে হারলো রুমানারা
.............................................................................................
মাশরাফির পায়ে দিতে হল ২৭ সেলাই
.............................................................................................
দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে ঢাকায় আসছে শ্রীলংকা দল
.............................................................................................
কট্টরপন্থী নেতার বিরুদ্ধে মামলা ঠুকেলেন ফ্রান্স অধিনায়ক কারিম বেনজেমা
.............................................................................................
আইপিএলে ১৫৭ কিমি গতিতে বল করলেন কাশ্মীরের ‘ফেরারি’
.............................................................................................
ফাইনালে রিয়ালকে পেয়ে সালাহর হুঁশিয়ারি
.............................................................................................
জয় দিয়ে জাহানারাদের ফেয়ারব্রেক লিগের আসর শুরু
.............................................................................................
রিয়ালের জয়ে মেসি, `এটি সত্যি হতে পারে না`
.............................................................................................
ভক্তদেরকে ক্রিকেটারদের ঈদের শুভেচ্ছা
.............................................................................................
পাঁচ মিনিটের ঝড়ে সিটিকে উড়িয়ে ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদ
.............................................................................................
সাকিব সর্বকালের সেরা টি-টোয়েন্টি অলরাউন্ডারের তালিকায়
.............................................................................................
বাংলাদেশ দলে কোনো লবিং নেই : মাশরাফি
.............................................................................................
মাঠকর্মীদের সাকিবের ঈদ উপহার
.............................................................................................
দুবাইয়ে টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে খেলবেন জাহানারা-রুমানা
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

সম্পাদক ও প্রকাশক : মোহাম্মদ আখলাকুল আম্বিয়া
নির্বাহী সম্পাদক: মাে: মাহবুবুল আম্বিয়া
যুগ্ম সম্পাদক: প্রদ্যুৎ কুমার তালুকদার

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: স্বাধীনতা ভবন (৩য় তলা), ৮৮ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০। Editorial & Commercial Office: Swadhinota Bhaban (2nd Floor), 88 Motijheel, Dhaka-1000.
সম্পাদক কর্তৃক রঙতুলি প্রিন্টার্স ১৯৩/ডি, মমতাজ ম্যানশন, ফকিরাপুল কালভার্ট রোড, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত ।
ফোন : ০২-৯৫৫২২৯১ মোবাইল: ০১৬৭০৬৬১৩৭৭

Phone: 02-9552291 Mobile: +8801670 661377
ই-মেইল : dailyswadhinbangla@gmail.com , editor@dailyswadhinbangla.com, news@dailyswadhinbangla.com

 

    2015 @ All Right Reserved By dailyswadhinbangla.com

Developed By: Dynamic Solution IT